kalerkantho

শুক্রবার  । ১৮ অক্টোবর ২০১৯। ২ কাতির্ক ১৪২৬। ১৮ সফর ১৪৪১              

নবীগঞ্জে হোটেলের রাধুনীকে ধর্ষণ, দোকান কর্মচারী গ্রেপ্তার

নবীগঞ্জ (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি    

৯ অক্টোবর, ২০১৯ ১৫:১৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নবীগঞ্জে হোটেলের রাধুনীকে ধর্ষণ, দোকান কর্মচারী গ্রেপ্তার

হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ শহরের নতুন বাজার এলাকা থেকে নিপেশ দাশ নামের এক হোটেল কর্মচারীকে একই হোটেলের রান্নার কাজে নিয়োজিত মহিলা কর্মচারীকে ধর্ষণ মামলায় গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। অভিযুক্ত  কর্মচারী বানিয়াচং উপজেলার ধানপুড়া গ্রামের মৃত করুণা দাশের ছেলে। এ ব্যাপারে ধর্ষিতা বাদী হয়ে গত মঙ্গলবার বিকালে ২ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ধর্ষণের শিকার নারী নবীগঞ্জ শহরের ওসমানী সড়কে ভাড়াটে বাসায় বসবাস করে শহরের বিভিন্ন হোটেলে রান্নার কাজ করে আসছিলেন। স্বামীর সঙ্গে ছাড়াছাড়ি হওয়ার পর তিনি দিরাই উপজেলার সমিপুর গ্রাম থেকে শহরে চলে আসেন। গত শনিবার সকালে শহরের নতুন বাজারস্থ একটি হোটেলে রান্না কাজ করার সময় হোটেল কর্মচারী নিপেশ দাশ (৪৮) হোটেলের ছনের কক্ষে নিয়ে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন। এ সময় অপর আসামি দোকান কর্মচারী আজমিরীগঞ্জ উপজেলার সমিপুর গ্রামের গণেশ রায়ের পুত্র সুমন রায় (৩২) পেছনের রুমের দরজা বন্ধ করে রাখেন। 

ঘটনার পর ধর্ষিতা নবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে হবিগঞ্জ আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করেন। গতকাল মঙ্গলবার বিকালে নবীগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ তাৎক্ষণিকভাবে নিপেশ দাশকে শহর থেকে গ্রেপ্তার করে। 

অপর আসামি গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এ ব্যাপারে থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন বলেন, হোটেল রাধুনী জনৈক মহিলা ধর্ষণের অভিযোগ দাখিল করলে সেটা এফআইআর হিসেবে রুজু করা হয় এবং মামলার অভিযুক্ত মূল আসামিকে তাৎক্ষণিকভাবে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা