kalerkantho

শুক্রবার । ১৫ নভেম্বর ২০১৯। ৩০ কার্তিক ১৪২৬। ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

হাটহাজারীতে পরিবহন ধর্মঘট, যাত্রীদের দুর্ভোগ

হাটহাজারী (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি   

৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২২:২৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



হাটহাজারীতে পরিবহন ধর্মঘট, যাত্রীদের দুর্ভোগ

ছবি: কালের কণ্ঠ

গণ ও পণ্য পরিবহন ঐক্যপরিষদের ডাকে চলছে অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট। আজ রবিবার ভোর থেকেই এ ধর্মঘট পালিত হচ্ছে। ধর্মঘটের কারণে চরম দুর্ভোগে পড়েছে যাত্রীরা। তবে দূরপাল্লার বাস না ছাড়লেও পুরো হাটহাজারী দাপিয়ে বেড়াচ্ছে সিএনজি অটোরিকশা। সকালে গণপরিবহন সংকটে চাকরিজীবী, শিক্ষার্থী ও দূরপাল্লার যাত্রীদের চরম দুর্ভোগে পড়তে হয়। সিএনজি অটোরিকশা ও রিকশা ভাড়া গুণতে হচ্ছে দ্বিগুণ।

চট্টগ্রাম বিভাগের ব্রাহ্মণবাড়িয়া ও চাঁদপুর ছাড়া বাকি নয় জেলায় এই ধর্মঘট কর্মসূচি শুরু হয় গতকাল রবিবার ভোর ৬টা থেকে। ৭২ ঘণ্টার সময়সীমা পার হওয়ায় অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটে গেছে গণ ও পণ্য পরিবহন মালিক ঐক্যপরিষদ। নয় দফা দাবি মেনে নিতে গত ৪ সেপ্টেম্বর সংবাদ সম্মেলন করে এই সময়সীমা বেঁধে দিয়েছিল সংগঠনটি।

সকাল থেকেই হাটহাজারীর বিভিন্ন স্পট ঘুরে দেখা গেছে হাটহাজারী বাসস্ট্যান্ড থেকে হাটহাজারী টু অক্সিজেনের কোনো বাসই ছাড়ছে না। সারিবদ্ধভাবে টার্মিনালে দাঁড়িয়ে আছে। টিকিট কাউন্টারও তালাবদ্ধ। সংগঠনের অনেক নেতা-কর্মীদের সড়কে আনাগোনা দেখা গেলেও পিকেটিং বা চলাচলরত সিএনজি অটোরিকশা, প্রাইভেট মিনি ট্রাক, মালবোঝাই ট্রাককে চলাচলে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করতে দেখা যায়নি। বাসস্ট্যান্ড গোল চত্বরে পুলিশের একটি জলকামান ও এপিসি দাঁড়িয়ে আছে সঙ্গে সড়কে আছে বিপুল পরিমাণ পুলিশের টহল।

সূত্রে জানা গেছে ধর্মঘটে পক্ষ-বিপক্ষ দুটি গ্রুপ থাকায় অনেক শিথিল ঐক্যপরিষদের ডাকা ধর্মঘট। তবে এ মন্তব্যকে অস্বীকার করে ঐক্যপরিষদের উত্তর চট্টগ্রামের যুগ্ম সম্পাদক মো. শাহজাহান ধর্মঘট পুরোদমে চলছে দাবি করে বলেন আমাদের সমিতির অন্তর্ভুক্ত একটি গাড়িও রাস্তায় নেই। চলাচলরত যেসব যান চলছে তারা আমাদের সমিতির অন্তর্ভুক্ত নয়। দ্বিতীয়ত সিএনজি অটোরিকশা চলাচলে আমরা কোনো প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করছি না। ইতিমধ্যে আমাদের সঙ্গে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজে বিভাগীয় পর্যায়ে প্রশাসন বৈঠকে বসছে। বৈঠক সন্তোষজনক হলে আমরা ধর্মঘট প্রত্যাহার করব নতুবা চলবে।

হাটহাজারী মডেল থানার ওসি বেলাল উদ্দিন জাহাঙ্গীর যান চলাচল স্বাভাবিক জানিয়ে বলেন, হাটহাজারী থেকে অক্সিজেন পর্যন্ত আমাদের পুলিশ কাজ করছে সকাল থেকে এখন পর্যন্ত কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা