kalerkantho

মঙ্গলবার । ১২ নভেম্বর ২০১৯। ২৭ কার্তিক ১৪২৬। ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

নাতির ফাঁড়া কাটাতে কলা গাছের ভেলা ভাসান

গফরগাঁও (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি    

৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১১:৫৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নাতির ফাঁড়া কাটাতে কলা গাছের ভেলা ভাসান

নাতির জীবনে একের পর এক ফাঁড়া। ফাঁড়া কাটাতে তাই নেওয়া হয়েছে উদ্যোগ। ঘর আকৃতির কলা গাছের ভেলা। তার ভেতর মিষ্টি-কুমড়া' মুরগীর মাংসের তরকারি, চাল আঠার রুটি, দুধ-কলা, মোমবাতি, আগরবাতি জ্বেলে, লাল নিশান উড়িয়ে পানিতে ভাসিয়ে দিয়েছেন নানা দুলাল মিয়া।

ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে। গতকাল বৃহস্পতিবার (৫ সেপ্টেম্বর) রাতের বেলা। পৌর শহরের ইসলামিয়া সরকারি হাইস্কুলের পেছনে যে মাছের খামার, তার পানিতে ভাসানো হয়  ভেলাটি। আশপাশের বাসা-বাড়ির কৌতুহলী মানুষ বিষয়টি উপভোগ করেন।

স্থানীয় সূত্র জানায়, পৌর শহরের শিলাসী এলাকার দুলাল মিয়ার নাতি সোয়াত (৭) যাতে পানিতে না পড়ে, যেন বিপদ আপদ না আসে, থাকলেও তার সম্ভাবনা কাটাতে আর কল্যাণ কামনায় প্রতিবছর একবার ভেলা ভাসান। তাঁর বিশ্বাস ভেলা ভাসিয়ে ভোগ দিলে নাতিটি নিরাপদ থাকবে। দুলাল মিয়ার মতো একই এলাকার আবুল কাশেম, সিরাজ উদ্দিনও প্রতিবছর ভেলা ভাসান।

দুলাল মিয়া বলেন, নাতিটি কয়েক দিন আগে স্বপ্নে সাপ দেখে ভয় পায়। তাছাড়া আশপাশে জলাশয়ের পানিতে যাতে পড়ে না যায়, সে  জন্য নাতির কল্যাণে ভেলা ভাসিয়েছি।

স্থানীয় স্কুলশিক্ষক মাজহারুল ইসলাম মিথুন বলেন, 'এটি ভিত্তিহীন নিছক কু-সংস্কার। বিপদ-আপদ ও কল্যাণের সঙ্গে ভেলা ভাসানোর কোনো  সম্পর্ক নেই। তবে সরল মনের বধ্যমূল বিশ্বাস থেকেই তাঁরা এটি করেছেন।'      

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা