kalerkantho

মঙ্গলবার । ১২ নভেম্বর ২০১৯। ২৭ কার্তিক ১৪২৬। ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

গাজীপুরে কুপিয়ে কিশোর খুন

নিজস্ব প্রতিবেদক, গাজীপুর   

৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২১:২১ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



গাজীপুরে কুপিয়ে কিশোর খুন

গাজীপুরে নুরুল ইসলাম (১৪) নামে এক কিশোরকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। মঙ্গলবার বিকেলে শহরের রাজদীঘির উত্তর পাড়ে এ ঘটনা ঘটে। নুরুল ফেরি করে চা বিক্রি করতো। কারা এবং কেন তাকে হত্যা করেছে সে বিষয়ে পরিবার সদস্যরা ধারণা দিতে পারেননি। প্রকাশ্য এ হত্যার ঘটনায় জড়িতদের শনাক্ত ও গ্রেপ্তারে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে।

স্বজনরা জানান, নুরুল ইসলামের পিতার নাম ফকির আলী। বাড়ি শেরপুর জেলার শ্রীবর্দী থানার ভায়াডাঙ্গা (ভাগাতা) গ্রামে। সম্প্রতি তারা শহরের টাংকির পাড় এলাকায় ফরিদ মিয়ার বাড়িতে ভাড়াটে হিসেবে ওঠে। বাবা ফকির আলী পাখি ধরে বিক্রি করেন। আর নুরুল চা বিক্রি করতো। মঙ্গলবার দুপুরে নিজ বাসায় খাবার খেয়ে নুরুল ঘুমিয়ে ছিল। বেলা তিনটার দিকে রাজদিঘীর পাড়ে যায়। সেখানেই ৪/৫ জন কিশোর চাপাতি নিয়ে তার উপর হামলা চালায়। তাকে চাপাতি দিয়ে পিঠে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। স্থানীয় লোকজন নুরুল ইসলামকে উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

বাবা ফকির আলী জানান, দুই মেয়ে ও এক ছেলের মধ্যে নূরুল ইসলাম বড় । নুরুল সংসার চালাতে সহযোগিতার জন্য ফেরি করে চা বিক্রি করতো। মাঝেমধ্যে টেম্পু বা বাসে হেলপারী করতো। আগে তারা শহরের সাহাপাড়ায় থাকতেন। মাত্র দুইদিন আগে নতুন বাসায় উঠেন। কেন নুরুলকে এভাবে হত্যা করা হয়েছে তা বুঝতে পারছেন না ফকির আলী। মঙ্গলবার সকালে তিনি পাখি ধরতে বাইরে চলে যাওয়ায় ঘটনার সময় বাসায় ছিলেন না। ছেলে হত্যার সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে যান।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের সদর থানার এসআই লিয়াকত আলী বলেন, 'কি কারণে কারা কিশোর নুরুল ইসলামকে কুপিয়ে হত্যা করেছে তা জানা যায়নি। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। ময়নাতদন্তের জন্যে লাশ মর্গে রয়েছে।'

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা