kalerkantho

জগন্নাথপুরে পুলিশ সুপার

সুনামগঞ্জের শান্তি শৃঙ্খলা নিশ্চিতে কাজ করতে চাই

জগন্নাথপুর (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি   

২৫ আগস্ট, ২০১৯ ২৩:৫৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সুনামগঞ্জের শান্তি শৃঙ্খলা নিশ্চিতে কাজ করতে চাই

ছবি : কালের কণ্ঠ

সুনামগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান বিপিএম বলেছেন, সুনামগঞ্জ হচ্ছে একটি শান্তির শহর। এই শহরের শান্তি শৃঙ্খলা নিরাপত্তা নিশ্চিতে আমরা কাজ করতে চাই। তিনি বলেন, পুলিশ এখন জনবান্ধব হয়ে কাজ করছে। জনগণের কাছাকাছি গিয়ে সমাজ থেকে অপরাধ নির্মূলে আমরা কাজ করতে চাই। এতে সকলের সহযোগীতা প্রয়োজন।

তিনি বলেন, জনগণের করের টাকায় আমরা বেতন পাই। ঘুষ না খাওয়া আমাদের কোনো কৃতিত্ব নয়। সততার সহিত দায়িত্ব পালন করাই হচ্ছে আমাদের কাজ। তিনি পিছিয়ে থাকা সুবিধা বঞ্চিত মানুষের আইনি অধিকার নিশ্চিতে আরো আন্তরিকতার সহিত কাজ করার আহ্বান জানান। 

জগন্নাথপুরের আইন-শৃঙ্খলার উন্নয়নে জনগণের বিভিন্ন সুপারিশ বাস্তবায়নে তিনি প্রতিশ্রুতি দেন। আজ রবিবার বিকেলে সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর থানা পুলিশের উদ্যাগে কমিউনিটি পুলিশিং সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

থানা ভবন চত্বরে অনুষ্ঠিত সভায় শুরুতে স্বাগত বক্তব্য দেন অনুষ্ঠানের সভা প্রধান জগন্নাথপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি ইখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী। এতে বিশেষ অতিথির  বক্তব্য দেন জগন্নাথপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আতাউর রহমান, সহকারী পুলিশ সুপার জগন্নাথপুর সার্কেল মাহবুবুল হাসান চৌধুরী, উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান বিজন কুমার দেব, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম রিজু,সাবেক পৌর মেয়র মিজানুর রশীদ ভূঁইয়া প্রমুখ।

অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সৈয়দপুর শাহারপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তৈয়ব মিয়া, প্রেস ক্লাব সভাপতি শংকর রায়, সাধারণ সম্পাদক সানোয়ার হাসান সুনু, প্রবাসী কমিউনিটি নেতা আকমল খান, পৌর আওয়ামী লীগ সভাপতি ডাক্তার আবদুল আহাদ, সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন ভূইয়া, সৈয়দপুর আদর্শ কলেজের অধ্যক্ষ আব্দুর রহমান, মিরপুর পাবলিক উচ্চ বিদ্যালয় প্রধান শিক্ষক আমির হামজা, শিক্ষক সাইফুল ইসলাম রিপন, আশারকান্দি ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আইয়ুব খান, ব্যবসায়ী জামাল মিয়া তালুকদার, কাউন্সিলর পৌর শফিকুল ইসলাম, তাজিবুর রহমান আওয়ামীলীগ নেতা শহিদুল ইসলাম বকুল সৈয়দ মনোয়ার আলী, নুরুল হক, জাতীয় পার্টি নেতা আব্দুল মনাফ, উপজেলা যুবলীগ সভাপতি কামাল উদ্দিন, উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি সাফরোজ ইসলাম প্রমুখ।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা