kalerkantho

চাঁদাবাজির মামলায় ছাত্রলীগ নেতা সোহাগ গ্রেপ্তার

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি   

২২ আগস্ট, ২০১৯ ২০:৪৯ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চাঁদাবাজির মামলায় ছাত্রলীগ নেতা সোহাগ গ্রেপ্তার

চাঁদাবাজির একটি মামলায় পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে ছাত্রলীগ সৈয়দপুর উপজেলা শাখার সাবেক সভাপতি মো.আহসান হাবিব ওরফে সোহাগ সরকারকে (৩৫)। স্থানীয় একটি বিনোদন পার্ক পাঁতাকুঁড়ির মালিকের করা চাঁদাবাজির মামলায় তাকে বৃহস্পতিবার গ্রেপ্তার করে নীলফামারী কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়,সৈয়দপুর শহরের চাঁদনগর এলাকার বাসিন্দা জয়নাল আবেদীন সরকার ২০১৮ সালে পাতাকুঁড়ি নামে একটি বিনোদন পার্ক গড়ে তোলার কাজ শুরু করেন। শহরের উপকণ্ঠে কয়াগোলাহাট এলাকায় পাঁচ একর  ১৫ শতক জমিতে নির্মিত পার্কটির কাজ অব্যাহত রয়েছে। কাজ শুরুর পর সোহাগ সরকার ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেন। সেই সঙ্গে পার্কে দর্শানার্থীর কাছে বিক্রি করা টিকিটের টাকার ৩০ শতাংশ দাবি করেন। সোহাগ দাবিকৃত টাকা না পেয়ে পার্কের মালিক জয়নাল আবেদীন সরকারকে জীবননাশের হুমকি দেন। দর্শনার্থীদের পার্কে প্রবেশে বাঁধা দেন। ঈদের আগের দিন সকালে সোহাগ সরকার লেআকজন নিয়ে বিনোদন পার্ক পাতাকুঁড়িতে যান। ম্যানেজার উমর ফারুক সবুজের কাছে চাঁদা দাবি করেন। এরপর তারা পার্কের কাউন্টারে থাকা ১০ হাজার টাকা নিয়ে নেন।

পার্কের ম্যানেজার মোবাইল ফোনে দ্রুত সংবাদ দেন মালিককে। ঘটনা জেনে জয়নাল আবেদীন পার্কে যান ছেলে রফিকুল ইসলাম বিদ্যূৎকে সঙ্গে নিয়ে। তখন সোহাগ সরকার অস্ত্র বের করে ভয় দেখান। দাবিকৃত চাঁদার টাকা ও টিকেট বিক্রির অংশীদারিত্ব না পেলে প্রাননাশের হুমকি দেন। এক পর্যায়ে সোহাগ সরকার ও তার সঙ্গীরা পার্কটিতে ভাঙচুর করেন। তারা পার্কে প্রবেশের রাস্তা কেটে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করেন। 'পাতাকুঁড়ি পার্ক বন্ধ' লেখা একটি ব্যানার টাঙিয়ে দেন। এ অবস্থায় রবিবার পাতাকুঁড়ি পার্কের মালিক জয়নাল আবেদীন ছাত্রলীগ নেতা সোহাগ সরকারকে প্রধান আসামি করে পাঁচজনের বিরুদ্ধে সৈয়দপুর থানায় একটি চাঁদাবাজির মামলা দায়ের করেন। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই দীলিপ কুমার রায় বৃহস্পতিবার দুপুরে  কয়াগোলাহাট এলাকা থেকে আসামি সোহাগ সরকারকে গ্রেপ্তার করেন।

সৈয়দপুর থানার ওসি শাহজাহান মণ্ডল জানান, চাঁদাবাজির মামলায় আসামি সোহাগকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আদালতে সোপর্দ করা হলে তাকে নীলফামারী কারাগারে পাঠানো হয়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা