kalerkantho

উলিপুরে ঝুঁকির মুখে শতবর্ষী সেতু

উলিপুর(কুড়িগ্রাম)প্রতিনিধি   

১৭ আগস্ট, ২০১৯ ১৯:১২ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



উলিপুরে ঝুঁকির মুখে শতবর্ষী সেতু

কুড়িগ্রামের উলিপুরে বুড়িতিস্তা নদীর উপর নির্মিত শত বছরের পুরনো একটি সেতু চরম ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় রয়েছে। যেকোন মহুর্তে তা ভেঙ্গে যেতে পারে। আর তাতে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়বে পৌরসভাসহ ১৫ টি গ্রামের মানুষজন। অর্ধলক্ষাধিক মানুষ ব্রীজটি ব্যবহার করে থাকেন।

স্থানীয় সূত্র জানায়, দলদলিয়া ইউনিয়নের পাতিলাপুরি গ্রামে ১৯২৫ সালে বুড়িতিস্তা নদীর উপর ৩৫ ফুট দৈর্ঘ্যের ব্রীজটি নির্মান করা হয়। দীর্ঘদিন ধরে ঝুঁকি নিয়ে ব্রীজটির উপর দিয়ে যানচলাচল করছে। সম্প্রতি বুড়িতিস্তা নদী খনন করা হলে তা আরো বেশি ঝুঁকির মধ্যে পড়ে যায়। এছাড়া   বন্যার পানির তোড়ে ব্রিজটির নীচের মাটি সরে গিয়ে গভীর গর্তের সৃষ্টি হয়েছে। ব্রীজটির উইং ওয়ালের ইট বিচ্ছিন্ন হয়ে পাটাতন মাটির উপর আটকে আছে। এ ধরনের চিত্র দেখেও সংশ্লিষ্টরা ব্যবস্থা গ্রহণ করেননি।
স্থানীয় বাসিন্দা আব্দুর রহিম(৭৫), কেরামত আলী(৬২)সহ অনেকে জানান, প্রতিদিন এ ব্রীজের উপর দিয়ে স্কুল-কলেজের ছাত্রছাত্রীসহ শত শত যানযাহন ঝুঁকি নিয়ে চলছে। ব্রীজটি ভেঙ্গে গেলে উলিপুর পৌরসভাসহ দলদলিয়া ও থেতরাই ইউনিয়নের মিয়াপাড়া, পাতিলাপুর, ঘাটিয়াল পাড়া, টাপু, কিশোরপুর, অর্জুনসহ ১৫ গ্রামের হাজার হাজার মানুষকে দূর্ভোগের মধ্যে পড়তে হবে। 

শনিবার বিকেলে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা গোলাম হোসেন মন্টু ও ভাইস চেয়ারম্যান আবু সাঈদ সরকার ক্ষতিগ্রস্থ ব্রীজটি পরিদর্শন করেন। জনস্বার্থে ব্রীজটি নতুন করে দ্রুত নির্মানের উদ্যোগ নেয়া হবে বলে তারা জানান।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা