kalerkantho

রবিবার । ২১ জুলাই ২০১৯। ৬ শ্রাবণ ১৪২৬। ১৭ জিলকদ ১৪৪০

গৃহবধূর বিষপান

হাসপাতালে স্ত্রীর লাশ রেখে স্বামী পলাতক

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি   

১৬ জুন, ২০১৯ ০৩:৪৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



হাসপাতালে স্ত্রীর লাশ রেখে স্বামী পলাতক

প্রতীকী ছবি

মুন্সীগঞ্জের শ্রীনগরে মেরিনা বেগম (২৭) নামের এক গৃহবধূ বিষপান করলে অসুস্থ অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এবং পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকার মিটফোর্ড হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে চিকিত্সাধীন অবস্থায় গত শুক্রবার রাত ৯টার দিকে তিনি মারা যান। মৃত্যুর পর ওই গৃহবধূর লাশ হাসপাতালে রেখে স্বামী রাজু সারেং (৩২) পালিয়ে যান। 

গৃহবধূর পরিবার সূত্রে জানা যায়, উপজেলার ভাগ্যকুল ইউনিয়নের মধ্য কামাগাঁও গ্রামের ফরহাদ সারেংয়ের ছেলে রাজু সারেং একই গ্রামের আব্দুর রশিদ হাওলাদারের মেয়ে মেরিনাকে চার মাস আগে বিয়ে করেন। কিন্তু রাজুর প্রথম স্ত্রীকে কেন্দ্র করে মেরিনার সঙ্গে প্রায়ই ঝগড়া হতো রাজুর। গত শুক্রবার বিকেলে ঝগড়ার জেরে মেরিনা বিষপান করেন। 

মেরিনার বাবা আব্দুর রশিদ হাওলাদার বলেন, ‘আমার মেয়ের আগে বিয়ে হয়েছিল। কিন্তু তাদের ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়। পরে রাজু ও মেরিনা একে অন্যকে পছন্দ করে বিয়ে করে। রাজু মেরিনাকে মানসিক ও শারীরিক নির্যাতন করত। নির্যাতন সইতে না পেরে সে বিষপান করে আত্মহত্যার পথ বেছে নেয়।’ স্ত্রীর লাশ হাসপাতালে রেখে রাজু পালিয়ে যান। 

শ্রীনগর থানার ওসি ইউনুচ আলী জানান, ‘এ বিষয়ে এখনো কোনো অভিযোগ পাইনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা