kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৫ জুন ২০১৯। ১১ আষাঢ় ১৪২৬। ২২ শাওয়াল ১৪৪০

নেত্রকোনায় মাছ ধরা নিয়ে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষ, আহত ২০

হাওরাঞ্চল প্রতিনিধি   

২২ মে, ২০১৯ ২৩:৪৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নেত্রকোনায় মাছ ধরা নিয়ে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষ, আহত ২০

ছবি: কালের কণ্ঠ

নেত্রকোনার খালিয়াজুরীতে হাওরে মাছ ধরার ঘটনাকে কেন্দ্র করে দুই গ্রামবাসীর মধ্যে চলা এক রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে কমপক্ষে ২০ জন আহত হয়েছে।

গুরুতর আহত ৫ জনকে খালিয়াজুরী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। বাকিদেরকে স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

আজ বুধবার দুপুর ১২টার দিকে উপজেলার নগর ইউনিয়নের বাঘাটিয়া গ্রামবাসীর সঙ্গে একই ইউনিয়নের গন্ডামারা গ্রামবাসীর এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 

এ ঘটনায় এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করলে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। 

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার বাঘাটিয়া গ্রামের পাশের ‘মালির খাল’ নামক হাওরে প্রতি বছরই বাঘাটিয়া ও গন্ডামারা গ্রামের লোকজন মিলেমিশে মাছ ধরে আসছিল। কিন্তু এবার বাঘাটিয়া গ্রামের লোকজন ওই হাওরে মাছ ধরতে গন্ডামারা গ্রামের লোকজনদের বাধা দিয়ে আসছিল।

এ অবস্থায় বুধবার দুপুরে গন্ডামারা গ্রামের কয়েকজন লোক জাল নিয়ে মাছ ধরার জন্য ওই হাওরে যান। বিষয়টি টের পেয়ে বাঘাটিয়া গ্রামের লোকজন সেখানে গিয়ে তাদেরকে মাছ ধরতে বাধা দেন। পরে এ নিয়ে কথাকাটাকাটির এক পর্যায়ে দুই গ্রামের লোকজনই সংঘর্ষে জড়িয়ে পরে। প্রায় ঘণ্টাব্যাপী চলা সংঘর্ষে প্রতিপক্ষের ধারাল অস্ত্র, বল্লম, কাতরা, লাঠিসোটা ও ইট-পাটকেলের আঘাতে কমপক্ষে ২০ জন আহত হন।

খালিয়াজুরী থানার ওসি এ টি এম মাহমুদুল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে কালের কণ্ঠকে বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে এবং এলাকার পরিস্থিতি এখন শান্ত রয়েছে। তবে বিষয়টি মিমাংসার চেষ্টা চলছে বলেও ওসি জানান।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা