kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৫ জুন ২০১৯। ১১ আষাঢ় ১৪২৬। ২২ শাওয়াল ১৪৪০

সান্তাহারে পঞ্চগড় এক্সপ্রেসের যাত্রাবিরতির দাবিতে অবরোধ প্রত্যাহার

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি   

২২ মে, ২০১৯ ১২:০৮ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



সান্তাহারে পঞ্চগড় এক্সপ্রেসের যাত্রাবিরতির দাবিতে অবরোধ প্রত্যাহার

বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলার সান্তাহার রেলওয়ে জংশন স্টেশনে পঞ্চগড় থেকে ঢাকাগামী পঞ্চগড় এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রাবিরতির দাবির ঘটনায় রেলওয়ে পশ্চিম অঞ্চলের মহাব্যবস্থাপক এ কে এম শহিদুল ইসলামের সাথে যাত্রাবিরতি বাস্তবায়ন কমিটির নেতৃবৃন্দের বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। সান্তাহার স্টেশন মাস্টারের কার্যালয়ে গত মঙ্গলবার দুপুরে প্রায় ২ ঘণ্টাব্যাপী এই বৈঠক চলে। বৈঠকে ট্রেন যাত্রাবিরতি বাস্তবায়ন কমিটির নেতৃবৃন্দ সান্তাহারে পঞ্চগড় এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রাবিরতির বিভিন্ন গুরুত্ব তুলে ধরেন।

বৈঠকে ট্রেন যাত্রাবিরতি বাস্তবায়ন কমিটির নেতৃবৃন্দের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বাস্তবায়ন কমিটির আহ্বায়ক সাবেক সাংসদ কছিম উদ্দীন আহম্মেদ, আদমদীঘি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম খান, ভাইস চেয়ারম্যান মাহাবুবুর রহমান পিন্টু, বাস্তবায়ন কমিটির যুগ্ন আহ্বায়ক সাজেদুল ইসলাম চম্পা, স্টেশন মাস্টার রেজাউল করিম ডালিম, সান্তাহার পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কাসেম প্রমুখ। 

মহাব্যবস্থাপক এ কে এম শহিদুল ইসলামের সাথে ছিলেন রেলওয়ে পশ্চিম অঞ্চলের প্রধান পরিবহন কর্মকর্তা মো. শাহা নেওয়াজ।

সান্তাহার জংশন স্টেশনে ঢাকাগামী পঞ্চগড় এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রাবিরতির দাবিতে সান্তাহার ট্রেন যাত্রাবিরতি বাস্তবায়ন কমিটি গত ১৬ মে থেকে মানববন্ধন, অবস্থান ধর্মঘট, গণস্বাক্ষর সংগ্রহ ও ট্রেন অবরোধ কর্মসূচি পালন করে আসছে। এতে সরকার বা রেলওয়ে কর্তৃপক্ষের কোনো প্রতিনিধি আন্দোলনকারীদের সাথে কোনো যোগাযোগ না করায় তারা ২২ মে থেকে সান্তাহার জংশন স্টেশনের ওপর দিয়ে চলাচলকারী ৩২টি ট্রেন অবরোধের ঘোষণা দেন। এর প্রেক্ষিতে মহাব্যবস্থাপক শহিদুল ইসলাম মঙ্গলবার দুপুরে আন্দোলনকারীদের সাথে বৈঠকে বসেন।

বৈঠক শেষে মহাব্যবস্থাপক এ কে এম শহিদুল ইসলাম উপস্থিত সাংবাদিকদের জানান, অত্যন্ত শান্তিপূর্ণভাবে আন্দোলনকারীদের সাথে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। তারা ট্রেন অবরোধের মতো কর্মসূচি দেবেন না বলে আমাকে আশ্বস্ত করেছেন। তবে দাবি আদায়ে নিয়মতান্ত্রিক ও শান্তিপূর্ণ আন্দোলন চালিয়ে যাবেন।

তিনি সান্তাহারে পঞ্চগড় এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রাবিরতির বিষয়ে বলেন, শুধু সান্তাহারে নয় আরো দু-একটি জায়গায় এই ট্রেনের যাত্রাবিরতি দেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে। তবে সেটি পর্যায়ক্রমে দেওয়া হবে। শহিদুল ইসলম আরো বলেন, যাত্রাবিরতির পাশাপাশি সান্তাহার স্টেশনে টিকিট বৃদ্ধিসহ নানা বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। 

যাত্রাবিরতি বাস্তবায়ন কমিটির আহ্বায়ক সাবেক সাংসদ কছিম উদ্দীন আহম্মেদ বলেন, আলোচনা শান্তিপূর্ণ হয়েছে। মহাব্যবস্থাপকের আশ্বাসের প্রেক্ষিতে আমরা আজ বুধবার ২২ মে তারিখের ট্রেন অবরোধ কর্মসূচি প্রত্যাহার করে নিয়েছি। তিনি বলেন, অবরোধ কর্মসূচি প্রত্যাহার করা হলেও নিয়মতান্ত্রিক আন্দোলন অব্যাহত থাকবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা