kalerkantho

বুধবার । ২২ মে ২০১৯। ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৬ রমজান ১৪৪০

অসুস্থ নানাকে নিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না নাতির

চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধি   

২২ এপ্রিল, ২০১৯ ১৪:০৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



অসুস্থ নানাকে নিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না নাতির

গুরুতর অসুস্থ নানা আলেপ প্রামাণিককে পাবনা সদর হাসপাতাল থেকে চিকিৎসা শেষে বাড়ি ফেরার পথে ট্রাক ও ব্যাটারিচালিত অটো 'বোরাক' এর মুখোমূখি সংঘর্ষে নাতি রনি হোসেন (১৫) নিহত হয়েছে। এ সময় ওই পরিবারের মহিলা শিশুসহ ছয়জন সদস্য গুরুতর আহত হয়েছেন। নিহত রনি ফরিদপুর উপজেলার খলসাদহ এলাকার আবুল কালামের ছেলে।

রবিবার বিকেল ৪টার দিকে পাবনা-চাটমোহর সড়কের আটঘরিয়া বাওইখোলা নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। 

স্থানীয়রা জানান, চাটমোহর উপজেলার বালুদিয়ার গ্রামের আলেপ প্রামাণিক হঠাৎ গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে পরিবারের সদস্যরা তাকে পাবনা সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। সেখানে চিকিৎসা শেষে পরিবারের সদস্যরা তাকে হাসপাতাল থেকে 'বোরাক'-এ নিয়ে বাড়ি ফিরতে থাকেন। পথে আটঘরিয়া বাওইখোলা এলাকায় বিপরীত দিক থেকে দ্রুতগতিতে আসা ট্রাকের (ঢাকা মেট্রো ট ১৪-৪৩৯৩) সাথে বোরাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই নাতি রনির মৃত্যু হয়। দুর্ঘটনায় বোরাকের চালকসহ ওই পরিবারের আরো ছয়জন গুরুতর আহত হয়। 

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে আটঘরিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রকিবুল ইসলাম বলেন, স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে আটঘরিয়া ও পাবনা সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। এদের মধ্যে বোরাকচালকের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় রাতেই তাকে ঢাকা মেডিক্যালে পাঠানো হয়।

মন্তব্য