kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২৩ মে ২০১৯। ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৭ রমজান ১৪৪০

চকলেটের কথা বলে চার বছরের শিশুকে পাশবিক নির্যাতন

নরসিংদী প্রতিনিধি   

২১ এপ্রিল, ২০১৯ ১৬:২০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



চকলেটের কথা বলে চার বছরের শিশুকে পাশবিক নির্যাতন

নরসিংদীর শিবপুরে রায়হান মিয়া (২২) নামের এক মুদি ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে চার বছরের এক শিশুকে পাশবিক নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আজ রবিবার সকালে শিশুটিকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ডাক্তারি পরীক্ষা ও চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয়েছে। গত শনিবার সন্ধ্যায় উপজেলার বাঘাব ইউনিয়নের সফরিয়া এলাকায় অভিযুক্তের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। 

পুলিশ ও নির্যাতনের শিকার শিশুটির পরিবারের লোকজনের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, অভিযুক্ত রায়হান সফরিয়া এলাকার আবদুর রাজ্জাক মিয়ার ছেলে। সে শিবপুর বাজারে তার বাবার সঙ্গে মুদি দোকানের ব্যবসা দেখাশোনা করে। গত শনিবার সন্ধ্যায় রায়হান তার প্রতিবেশী ওই শিশুটিকে চকলেট খাওয়ার লোভ দেখিয়ে তার ঘরে নিয়ে তার ওপর পাশবিক নির্যাতন চালায়। ওই সময় শিশুটি চিৎকার করলে আশপাশের লোকজন চলে আসলে অভিযুক্ত রায়হান পালিয়ে যায়। পরে শিশুটিকে জিজ্ঞাসা করলে সে ঘটনা পরিবারের লোকজনকে জানায়। খবর পেয়ে রাতেই পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সকালে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) ডা. মো. আমিরুল হক শামীম কলের কণ্ঠকে বলেন, শিশুটিকে আমরা হাসপাতালে ভর্তি করেছি। এরই মধ্যে গাইনি চিকিৎসক দিয়ে বিভিন্ন তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করা হয়েছে। এখন মামলা দায়েরের পর আবেদনের প্রেক্ষিতে পরিক্ষা-নিরীক্ষা করা হবে। আর এ ঘটনায় একটি মেডিক্যাল বোর্ড গঠন করা হচ্ছে।

শিবপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. মুমিনুল হক কালের কণ্ঠকে বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে শিশুটি হাসপাতালে পাঠায়। এ ঘটনায় শিশুটির মা বাদী হয়ে একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন, পরে সেটি মামলা হিসেবে নথিভুক্ত করা হয়েছে। অভিযুক্ত রায়হান পলাতক, তাকে গ্রেপ্তারে অভিযান চলছে।

মন্তব্য