kalerkantho

রবিবার । ২০ অক্টোবর ২০১৯। ৪ কাতির্ক ১৪২৬। ২০ সফর ১৪৪১                

শ্বশুরের ঘরে অগ্নিসংযোগের মামলায় জামাতা গ্রেপ্তার

ধুনট (বগুড়া) প্রতিনিধি   

২৪ মার্চ, ২০১৯ ১৬:৪৮ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



শ্বশুরের ঘরে অগ্নিসংযোগের মামলায় জামাতা গ্রেপ্তার

দাম্পত্য বিরোধের জের ধরে বগুড়ার ধুনট উপজেলায় দিনমজুর শ্বশুরের ঘরে পেট্রল ঢেলে অগ্নিসংযোগের মামলায় খোকন মিয়া (২৫) নামে মাদকাসক্ত জামাতাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। খোকন মিয়া সারিয়াকান্দি উপজেলার ছোট কুতুবপুর গ্রামের গোলাম রব্বানীর ছেলে। রবিবার দুপুর ১২টার দিকে ধুনট থানা থেকে আদালতের মাধ্যমে তাকে বগুড়া জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, উপজেলার চুনিয়াপাড়া গ্রামের দিনমজুর শাহজাহান আলীর মেয়ে বিলকিস খাতুনের প্রায় ৭ বছর আগে সারিয়াকান্দি উপজেলার কুতুবপুর গ্রামের গোলাম রব্বানীর ছেলে খোকন মিয়ার সাথে বিয়ে হয়। বিয়ের পর জীবিকার তাগিদে স্বামী-স্ত্রী ঢাকায় একটি পোশাক কারখানায় চাকরি নেয়। সেখানে একটি ভাড়াবাসায় অবস্থানকালে ৪ বছর ধরে মাদকাসক্ত হয়ে পড়ে খোকন মিয়া। 

এ বিষয় নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে প্রায়ই ঝগড়া-বিবাদ হতো। অকারণে বিলকিস খাতুনকে নানাভাবে নির্যাতন করত খোকন। নির্যাতন সইতে না পেরে প্রায় ৬ মাস আগে স্বামীকে ছেড়ে নিরুদ্দেশ হয় বিলকিস। স্ত্রীকে হারিয়ে ক্ষুব্ধ হয়ে বাড়ি ফিরে আসে খোকন। শ্বশুর-শাশুড়ির নিকট স্ত্রীর সন্ধান চেয়ে ব্যর্থ হয়ে ২৩ মার্চ রাত সাড়ে ১২টার দিকে খোকন মিয়া পেট্রল ঢেলে দিয়ে শ্বশুরের ঘরে অগ্নিসংযোগ করে। 

এ সময় শ্বশুর-শাশুড়ির চিৎকারে স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণ করেন। অগ্নিকাণ্ডে প্রায় লক্ষাধিক টাকার মালামাল পুড়ে গেছে। এদিকে স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থল থেকে খোকন মিয়াকে আটক করে গণধোলাই দিয়ে থানায় সোপার্দ করেছে। এ ঘটনায় শাশুড়ি মল্লিকা খাতুন বাদী হয়ে জামাতা খোকনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেছে।

থানাহাজতে আটক খোকন মিয়া বলেন, অবাধ্য স্ত্রীকে শাসন করেছি। তাকে অকারণে নির্যাতন করা হয়নি। শ্বশুর-শাশুড়ি আমার স্ত্রীকে গোপন করে রেখেছে। তাই স্ত্রীর খোঁজে শ্বশুর বাড়িতে গিয়েছিলাম। কিন্তু সেখানে স্ত্রী সন্তানকে না পেয়ে শ্বশুর-শাশুড়িকে ভয় দেখানোর জন্য ঘরে অগ্নিসংযোগ করেছি।

ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইসমাইল হোসেন বলেন, প্রাথমিক তদন্তে ঘটনার সত্যতার প্রমাণ পাওয়া গেছে। এ মামলায় খোকন মিয়া নামে জামাতাকে আদালতের মাধ্যমে বগুড়া কারাগারে পাঠানো হয়েছে। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা