kalerkantho

পঞ্চগড়-১ আসন: দুই প্রধানের কে হবেন নৌকার মাঝি?

পঞ্চগড় প্রতিনিধি   

১৭ নভেম্বর, ২০১৮ ১৭:০৩ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



পঞ্চগড়-১ আসন: দুই প্রধানের কে হবেন নৌকার মাঝি?

পঞ্চগড়-১ আসনে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়নপত্র কিনেছেন ৪ নারী প্রার্থীসহ মোট ২২ জন প্রার্থী। সব ছাপিয়ে এবার আলোচনায় এবার দুই প্রধান। একজন হলেন সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি মজাহারুল হক প্রধান। আরেকজন হলেন বাংলাদেশ জাসদের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ও পঞ্চগড়-১ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য নাজমুল হক প্রধান।

জাসদের একাংশ বাংলাদেশ জাসদের নিবন্ধন না থাকায় তিনি আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়নপত্র কিনেছেন। অন্যদিকে সাবেক সংসদ সদস্য মজাহারুল হক প্রধান মনোনয়ন পেতে এবার আগে ভাগেই মাঠে নেমেছে। এই দুই প্রধানের বাড়ি পঞ্চগড় সদর ইউনিয়নের জগদল এলাকায়। তারা সম্পর্কে চাচা ভাতিজা। মজাহারুল হক প্রধানের চাচাতো ভাইয়ের ছেলে নাজমুল হক প্রধান।

২০০৮ সালে নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিএনপির হেভিওয়াই প্রার্থী ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকারকে ৫০ হাজারেরও বেশি ভোটে পরাজিত করে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন মজাহারুল হক প্রধান। পঞ্চগড়, আটোয়ারী ও তেঁতুলিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের এক বড় অংশ তার সমর্থক। এবার তিনি আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেতে দলীয় মনোনয়নপত্র কিনে জমা দিয়েছেন।

অন্যদিকে ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি পঞ্চগড়-১ আসনে মজাহারুল হক প্রধান মনোনয়নপত্র জমা দিলেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে তিনি তা প্রত্যাহার করে নেন।

অন্যদিকে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে পঞ্চগড়-১ আসনে মহাজোটের প্রার্থী হিসেবে জেলা জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক আবু সালেককে মনোনয়ন দেওয়া হয়। কিন্তু আবু সালেককে পরাজিত করে নির্বাচিত হন জাসদের সে সময়ের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হক প্রধান। নির্বাচনে জয়লাভ করার পর তিনি পঞ্চগড় জাসদকে আরো উজ্জীবিত করেন। মুক্তিযোদ্ধা হওয়ায় মুক্তিযোদ্ধাসহ জাসদের নেতাকর্মীরা তার সমর্থক। এর মধ্যে জাসদ দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে পড়ে। আম্বিয়া-নাজমুল গ্রুপ জাসদ থেকে বেরিয়ে আসেন। তাদের দলের নতুন নাম হয় বাংলাদেশ জাসদ। তবে দলটি এখনো নিবন্ধন পায়নি। তাই তিনি নৌকা প্রতীকে নির্বাচনের জন্য আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়নপত্র কিনে জমা দিয়েছেন।

দুই প্রধানের কে পাবেন নৌকা প্রতিক তা নিয়েই এখন আলোচনা চলছে দলের তৃণমূল নেতাকর্মীদের মাঝে। তবে আওয়ামী লীগের তৃণমূল নেতাকর্মীরা এবার পঞ্চগড়ে আওয়ামী লীগের প্রার্থীকে মনোনয়নের দাবি তুলেছেন। তাদের দাবি গত সংসদের আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য না থাকায় পঞ্চগড়-১ আসনে আওয়ামী লীগের জৌলুস কিছুটা কমেছে। তাই তারা এবার আওয়ামী লীগের প্রার্থীকেই নৌকা প্রতীক দেওয়ার দাবি জানিয়েছেন।

জেলা আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবু বক্কর ছিদ্দিক জানান, গত সংসদ নির্বাচনে আমরা পঞ্চগড়-১ আসনটি জোটের শরীক দলের জন্য ছেড়ে দিয়েছিলাম। এই পাঁচ বছর আমরা বিভিন্নভাবে বঞ্চিত হয়েছি। এবার আমরা চাই আওয়ামী লীগের প্রার্থীকেই নৌকা প্রতীক দেওয়া হোক।

পঞ্চগড়-১ আসনের সাবেক সংসদ ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি মজাহারুল হক প্রধান জানান, দশম জাতীয় সংসদে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে মনোনয়ন দিয়েছিলেন। পরে তার নির্দেশেই জোটের স্বার্থে আমি মনোনয়ন প্রত্যাহার করি। তিনি আমাকে মাঠে থাকার নির্দেশ দিয়েছিলেন। আমি সব সময় দলীয় নেতাকর্মীদের সংগঠিত করে কাজ করে যাচ্ছি। এবার আশা করি প্রধানমন্ত্রী আমাকেই মনোনয়ন দিবেন।

পঞ্চগড়-১ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য ও বাংলাদেশ জাসদের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হক প্রধান জানান, আমাদের দলের নিবন্ধন না হওয়ায় মহাজোটের শরীক দল হিসেবে আমি আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র কিনে জমা দিয়েছি। আশা করি জোটের স্বার্থে এই আসনে আমাকেই মনোনয়ন দেওয়া হবে। 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা