kalerkantho

সোমবার । ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ২৯ নভেম্বর ২০২১। ২৩ রবিউস সানি ১৪৪৩

এজেন্টদের পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধি ও জীবনমান উন্নয়নে বিকাশের উদ্যোগ

অনলাইন ডেস্ক   

২৮ অক্টোবর, ২০২১ ২১:৩১ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



এজেন্টদের পেশাগত দক্ষতা বৃদ্ধি ও জীবনমান উন্নয়নে বিকাশের উদ্যোগ

সারাদেশে বিকাশ এজেন্টদের পেশাগত দক্ষতা উন্নয়ন, এমএফএস সংক্রান্ত বিধি-বিধান প্রতিপালনে সর্তক থাকাসহ নানা বিষয়ে কর্মশালা এবং জীবনমান উন্নয়নে জীবন বীমা, স্বাস্থ্য বীমা, সন্তানদের জন্য শিক্ষাবৃত্তিসহ নানা উদ্যোগ নিয়েছে দেশের সবচেয়ে বড় মোবাইল আর্থিক সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান বিকাশ।

যাত্রা শুরুর সময় থেকে গত ১০ বছরে মোবাইল আর্থিক সেবা খাতকে এগিয়ে নিয়ে যেতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে চলেছেন বিকাশ এজেন্টরা। পাশাপাশি এজেন্ট হিসেবে কর্মসংস্থানের মাধ্যমে নিজের ও পরিবারের জীবনমান উন্নয়ন করেছেন তাঁরা। 'হিউম্যান এটিএম' হিসেবে খ্যাত বিকাশ এজেন্টরা দেশের আনাচে-কানাচে সার্বক্ষণিক মোবাইল আর্থিক সেবা পৌঁছে দিচ্ছেন।

সম্প্রতি সারাদেশ থেকে নির্বাচিত স্টার এজেন্টদের আর্থিক খাতে ব্যবসা পরিচালনার ঝুঁকি নিরসনে সর্তকতা এবং পেশাগত দক্ষতা উন্নয়নে কর্মশালা আয়োজন করে বিকাশ। এজেন্টদের প্রযুক্তিগতভাবে সক্ষমতা বাড়ানো, এএমএল-সিএফটি সম্পর্কে পুনরায় জানানো, ব্যবসার ঝুঁকি এবং অন্যান্য বিষয় সম্পর্কে জানাতে সারা দেশের জেলা শহরগুলোতে এ কর্মশালা আয়োজন করা হয়।

পাশাপাশি এজেন্টদের জীবনমান উন্নয়নেও নানা পদক্ষেপ নিয়েছে বিকাশ।

বীমা সুবিধা
এ বছরের অক্টোবর থেকে স্টার এজেন্টদের জন্য জীবন বীমা ও স্বাস্থ্য বীমা সেবা অন্তর্ভুক্ত করেছে বিকাশ। জীবন বীমা সুবিধার আওতায় স্বাভাবিক মৃত্যু বীমা এবং দুর্ঘটনাজনিত বীমা কাভারেজ পাবেন এজেন্ট। পাশাপাশি নিজের, স্বামী/স্ত্রী এবং ১৮ বছরের নিচে দুজন সন্তানের জন্য রয়েছে স্বাস্থ্য বীমা কাভারেজ।

এজেন্টদের জন্য বিনামূল্যে স্পেশালিস্ট ডাক্তারের পরামর্শ
এজেন্টদের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় বিনামূল্যে ২৪ ঘণ্টা স্পেশালিস্ট ডাক্তারের পরামর্শ সেবা সংযোজন করেছে বিকাশ। নির্ধারিত নম্বরে ফোন করে এই টেলিমেডিসিন সেবা নিতে পারবেন বিকাশ এজেন্টরা।

সন্তানদের জন্য শিক্ষা উপবৃত্তি
এজেন্টেদের সন্তানদের জন্য এসএসসি, এইচএসসি অথবা স্নাতক শ্রেণিপড়ুয়া সন্তানদের জন্য শিক্ষাবৃত্তি চালু করেছে বিকাশ। স্টার এজেন্টদের সন্তানরা এ শিক্ষাবৃত্তি পাবে।

উল্লেখ্য, কভিডকালীন জরুরি সেবার আওতায় এমএফএস সেবা নিশ্চিত করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন এজেন্টরা।
বিকাশ এজেন্টদের জন্য এই উদ্যোগ সম্পর্কে বিকাশের চিফ কমার্শিয়াল অফিসার আলী আহম্মেদ বলেন, বিকাশ এবং বিকাশ এজেন্ট এক অপরের সাথে গত ১০ বছর ধরে বাংলাদেশের এমএফএস খাতকে আজকের অবস্থানে নিয়ে এসেছে। শুরু থেকেই বিকাশ এজেন্টদের প্রশিক্ষণ, ঝুঁকি মোকাবেলা, নিরাপত্তা নিশ্চিত করাসহ সব ধরনের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে তাঁদের টেকসই ব্যবসা গড়তে সহায়তা করে এসেছে। বিকাশ এজেন্টরা দেশের নানা প্রান্তে এই সেবাকে গ্রাহকের কাছে পৌঁছে দিচ্ছেন নিরবচ্ছিন্নভাবে।



সাতদিনের সেরা