kalerkantho

সোমবার । ৯ কার্তিক ১৪২৮। ২৫ অক্টোবর ২০২১। ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

শেষ হলো বাংলালিংক লার্ন ফ্রম দ্য স্টার্টআপস-এর দ্বিতীয় আসর

অনলাইন ডেস্ক   

২২ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৬:০৮ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



শেষ হলো বাংলালিংক লার্ন ফ্রম দ্য স্টার্টআপস-এর দ্বিতীয় আসর

স্নাতক পর্যায়ে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের দক্ষতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে আয়োজিত বাংলালিংকের বিশেষ প্রগ্রাম ‘লার্ন ফ্রম দ্য স্টার্টআপস’-এর দ্বিতীয় আসর সম্পন্ন হয়েছে। এই প্রগ্রামের মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা দেশের সেরা স্টার্টআপগুলোর কাছ থেকে অভিজ্ঞতা অর্জন ও কাজ করার সুযোগ পেয়ে থাকে। 'ড্রাইভিং ডিজিটাল ট্রান্সফরমেশন বাই ডেভেলপিং এন্ট্রাপ্রেনার‍িয়্যাল মাইন্ডসেটস' শীর্ষক একটি অনলাইন প্যানেল ডিসকাশন-এর মাধ্যমে এর সমাপনী অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে।

প্যানেল আলোচনায় শিক্ষা-উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী এমপি প্রধান অতিথি হিসেবে যোগদান করেন। এ ছাড়া নর্থ সাউথ ইউনিভার্সিটির ডিন ও প্রফেসর ড. আব্দুল হান্নান চৌধুরী, ইসলামিক ইউনিভার্সিটি অব টেকনোলজির ডিন অ্যান্ড ফ্যাকাল্টি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনিক্যাল এডুকেশন প্রফেসর ড. মোহাম্মদ রাকিবুল ইসলাম এবং বাংলালিংকের চিফ হিউম্যান রিসোর্সেস অ্যান্ড অ্যাডমিনিস্ট্রেশন অফিসার মনজুলা মোরশেদ প্যানেলিস্ট হিসেবে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে সমাপনী বক্তব্য দেন বাংলালিংকের চিফ করপোরেট অ্যান্ড রেগুলেটরি অ্যাফেয়ার্স অফিসার তাইমুর রহমান।

এই বছর লার্ন ফ্রম দ্য স্টার্টআপসের সেশনগুলো পরিচালনা করেছে রোবটিকস ও আইওটি নিয়ে কাজ করা স্টার্টআপ এএনটিটি রোবটিকস লিমিটেড। প্রগ্রামের অংশ হিসেবে উদ্ভাবন, আইডিয়া জেনারেশন, ডিজাইন থিংকিং, প্রোটোটাইপ বিল্ডিং, ইনভেস্টর পিচ, ক্লায়েন্ট ম্যানেজমেন্ট এবং অন্যান্য বিষয়ে দুটি ওয়েবিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

প্রগ্রামটিতে আগ্রহী অংশগ্রহণকারীদের যুক্ত করতে বাংলালিংক এবার নর্থ সাউথ ইউনিভার্সিটি, ইসলামিক ইউনিভার্সিটি অব টেকনোলজি, মিলিটারি ইনস্টিটিউট অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি, আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি বাংলাদেশ, এশিয়ান ইউনিভার্সিটি ফর উইমেন এবং ইউনাইটেড ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সাথে যৌথভাবে কাজ করছে। উক্ত বিশ্ববিদ্যালয়গুলো থেকে প্রায় ১০০ জন শিক্ষার্থী ক্যারিয়ার ক্লাবের মাধ্যমে এই কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করে।

শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী এমপি বলেন, “পেশাজীবী বা উদ্যোক্তা হিসেবে ভবিষ্যতে তরুণরা যেসব চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হবে, সেগুলোর জন্য তাদের প্রস্তুত করার উদ্যোগ নিয়েছে বাংলালিংক। প্রশিক্ষণের সুযোগ সৃষ্টির মাধ্যমে কর্পোরেট খাত কিভাবে তরুণদের ক্ষমতায়নে ভূমিকা রাখতে পারে তার একটি উদাহরণ এই উদ্যোগ। আমি এই উদ্যোগের সাফল্য কামনা করি এবং ভবিষ্যতের ডিজিটাল বাংলাদেশের নেতৃত্বে এই তরুণদের দেখতে চাই।”

বাংলালিংকের চিফ কর্পোরেট অ্যান্ড রেগুলেটরি অ্যাফেয়ার্স অফিসার তাইমুর রহমান বলেন, “বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের প্রয়োজনীয় দক্ষতা অর্জনে সহায়তা করার লক্ষ্যে আমাদের যেসব উদ্যোগ রয়েছে সেগুলোর মধ্যে লার্ন ফ্রম দ্যা স্টার্টআপস একটি। এই প্রগ্রামের মাধ্যমে তারা স্টার্টআপ ডায়নামিক্স, আইডিয়া জেনারেশন ও মার্কেট ইমপ্লিমেন্টেশনের পাশাপাশি অভিজ্ঞ উদ্যোক্তাদের কাছ থেকে স্টার্টআপ ইকোসিস্টেমের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ দিক সম্পর্কে জানতে পেরেছে। এই প্রশিক্ষণ তাদেরকে ভবিষ্যতে আত্মবিশ্বাস ও সাহসের সাথে কর্পোরেটে প্রবেশ করতে বা উদ্যোক্তা হতে সাহায্য করবে।” সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।



সাতদিনের সেরা