kalerkantho

রবিবার । ৩০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮। ১৩ জুন ২০২১। ১ জিলকদ ১৪৪২

পোশাক কর্মীদের জন্য এটিএম কার্ডের মাধ্যমে নিরাপদ খাবার পানি সরবরাহ

অনলাইন ডেস্ক   

১৭ মে, ২০২১ ১৭:১৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পোশাক কর্মীদের জন্য এটিএম কার্ডের মাধ্যমে নিরাপদ খাবার পানি সরবরাহ

সুজলা- জেটিআই ফাউন্ডেশনের অর্থায়নে পরিচালিত ‘ওয়াশ’ প্রোগ্রামের অংশ হিসেবে ২০১৯ সালের ১৫ই সেপ্টেম্বর পরীক্ষামূলক যাত্রা শুরু করে পোশাক কর্মীদের জন্য এটিএম কার্ডের মাধ্যমে নিরাপদ খাবার পানি সরবরাহের উদ্যোগ।

প্রকল্পটির মাধ্যমে পোশাক শিল্প শ্রমিকদের আবাসিক এলাকায় বসবাসরত জনসাধারণের জন্য নিরাপদ পানির সরবরাহ নিশ্চিত করার লক্ষ্যে ৫ জন স্থানীয় উদ্যোক্তাকে প্রয়োজনীয় অর্থনৈতিক ও কারিগরী সহায়তা দিয়ে বিশুদ্ধ খাবার পানির বুথ স্থাপন করা হয়। ২০২০ সালের মাঝামাঝি সময়ে প্রথম বিশুদ্ধ খাবার পানির বুথটি স্থাপনের পরিকল্পনা থাকলেও, কোভিড-১৯ মহামারীর কারণে ২০২০ সালের নভেম্বরে চট্টগ্রামে ইপিজেড অঞ্চলের পোশাক শিল্প শ্রমিকদের আবাসস্থল সংলগ্ন একটি স্থানে প্রথম বুথটি স্থাপিত হয়।

মহামারী এবং লকডাউনের বাধা-বিপত্তি সত্ত্বেও, এপ্রিল ২০২১ পর্যন্ত সুজলা প্রজেক্ট হতে সফলতার সাথে ৫টি বিশুদ্ধ পানির বুথ স্থাপন সম্পন্ন হয়েছে। যার মধ্যে দুটি ঢাকা জেলার অন্তর্গত সাভার এবং আশুলিয়ায়, দুটি বুথ স্থাপিত হয়েছে চট্টগ্রামে এবং গাজীপুরে একটি।

পাঁচটি স্থাপিত বিশুদ্ধ পানির বুথে নভেম্বর ২০২০ থেকে এপ্রিল ২০২১ এর মধ্যে- এখন পর্যন্ত ১,২০০ জন গ্রাহক রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে অন্তর্ভুক্ত হয়েছেন এবং প্রায় ১২০,০০০ লিটার পানি সরবরাহ করা হয়েছে। এর-ই পাশাপাশি এসব এলাকায় বিশুদ্ধ খাবার পানি পানের প্রয়োজনীয়তা এবং বিভিন্ন পানিবাহিত রোগ বিষয়ক সচেতনতামূলক ক্যাম্পেইন পরিচালনার মাধ্যমে প্রায় ৩০ হাজার মানুষের মাঝে সচেতনতামূলক বার্তা ছড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।

পোশাক শিল্পে কর্মরত শ্রমিকদের বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ নিশ্চিত করার পাশাপাশি এলাকায় উদ্যোক্তা তৈরীর একটি পরীক্ষামূলক ব্যবসায়িক কাঠামোর সামাজিক স্থায়ীত্ব এবং ব্যবসায়িক সম্ভাব্যতা পরীক্ষা করার লক্ষ্য নিয়ে সুজলা প্রকল্প কাজ করেছে। এ স্বল্প সময়ে প্রকল্পটির সামগ্রিক অগ্রগতি এবং আশাব্যঞ্জক ফলাফলের ওপর ভিত্তি করে বর্তমানে একটি স্কেল আপ পর্ব পরিকল্পনা করা হচ্ছে বলে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছেন উদ্যোক্তারা।



সাতদিনের সেরা