kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১০ আষাঢ় ১৪২৮। ২৪ জুন ২০২১। ১২ জিলকদ ১৪৪২

জাতীয় শিশু দিবস উদযাপন করল আলোকিত শিশু প্রকল্প

অনলাইন ডেস্ক   

১৮ মার্চ, ২০২১ ১৬:৫৭ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জাতীয় শিশু দিবস উদযাপন করল আলোকিত শিশু প্রকল্প

বুধবার (১৭ মার্চ) ‘জাতীয় শিশু দিবস’ উপলক্ষ্যে আলোকিত শিশু প্রকল্পের আওতায় বারাকা ছেলে শিশু দিবা ও নৈশকালীন আশ্রয়কেন্দ্রে সচেতনতামূলক আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানটি তিনটি পর্বে ভাগ করা হয়। অনুষ্ঠানে উপস্থিত সকল শিশু ও কর্মীদেরকে মাস্ক বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে উদ্ভোধনী সঙ্গীত ‘আমরা সুন্দর আমরা শিশু’ পরিবেশন করে শিশুরা।

ইনচার্জ আবুল কাশেম শুভেচ্ছা বক্তব্য ও জাতীয় শিশু দিবস অনুষ্ঠানের উদ্বোধনী ঘোষনা করেন। বক্তব্য রাখেন অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি কোতয়ালী থানার এসআই মি. সুলতান। তিনি বলেন, “বারাকা সেন্টার তোমাদের থাকার অনেক ভালো সুব্যবস্থা করেছে , তাই তোমরা রাস্তাঘাটে ঘোরাফেরা না করে সেন্টারে থাকো”।

শিশুদের তিনি তার মতো পুলিশ অফিসার হওয়া ও অন্যান্য বড় অফিসার হওয়ার স্বপ্ন দেখতে উদ্বুদ্ধ করেন। জনাব সুলতান শিশুদের সাথে আনন্দিত সময় কাটান ও ছবি তোলেন। মেয়েশিশুরা ‘একটি বাংলাদেশ’ গানে দলীয় নৃত্য পরিবেশন করেন। এরপর ছেলেশিশু শাহাদাৎ ‘শোন একটি মুজিবরের কন্ঠে লক্ষ্য মুজিবরের কণ্ঠ’ গানটি এককভাবে উপস্থাপন করেন। এসআই সুলতানের উপস্থিতিতে পরবর্তীতে কেক কাটা ও বিতরণ করা হয়। এপর্যায়ে আরও একটি দলীয় সঙ্গীত ও একটি দলীয় নৃত্য উপস্থাপিত হয়। সকল শিশু আনন্দের সাথে তা উপভোগ করেন।

অনুষ্ঠানের তৃতীয় অংশে মিস ময়না মারিয়া গমেজ মাদক ব্যবহার ও তার কুফল এবং করোনার নতুন ভয়াবহতা তুলে ধরেন। তিনি করণীয় বিষয় সম্পর্কে অবহিত করেন।

অনুষ্ঠানে সমাপনী বক্তব্য প্রদান করেন মিসেস লিভা লিওনী রোজারিও। তিনি শিশু অধিকার ও শিশু সুরক্ষা বিষয়ে কিছু সচেতনতামূলক কথা বলেন। এছাড়া সচেতনতামূলক অংশে বারাকা মেলটিসির অংশগ্রহণ ও কেক প্রদানের জন্য শুভাকাঙ্খীকে ধন্যবাদ প্রদান করেন। তিনি করোনা মহামারী পরিস্থিতিতে সকলকে মাস্ক পরিধান করা, বার বার সাবান -পানি দিয়ে হাত ধোয়া, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কথা বলে করোনা পরিস্থিতিতে সীমিত পরিসরে আয়োজিত অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষনা করেন। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি।



সাতদিনের সেরা