kalerkantho

শুক্রবার । ৭ কার্তিক ১৪২৭। ২৩ অক্টোবর ২০২০। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

ফাইভ স্টার এনার্জি রেটিংয়ের আনুষ্ঠানিক অনুমোদন পেলো কনকা রেফ্রিজারেটর ও ফ্রিজার

অনলাইন ডেস্ক   

১৫ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ১৬:৫৫ | পড়া যাবে ৪ মিনিটে



ফাইভ স্টার এনার্জি রেটিংয়ের আনুষ্ঠানিক অনুমোদন পেলো কনকা রেফ্রিজারেটর ও ফ্রিজার

কনকা ব্র্যান্ডের রেফ্রিজারেটর / ফ্রিজারের পাঁচটি মডেলে আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত ফাইভ স্টার এনার্জি রেটিং লেবেল বসানোর অনুমোদন দিয়েছে বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইনস্টিটিউশন (বিএসটিআই)। ৮ সেপ্টেম্বর বিএসটিআই কর্তৃপক্ষ তাদের কার্যালয় থেকে এই অনুমতি প্রদান করে। এখন থেকে কনকা রেফ্রিজারেটর / ফ্রিজার ব্র্যান্ড এবং এর পাঁচটি মডেল (KRT200GB, KRT240GB, KRB200GB, KRB230GB, KDF200GB) - এ বিএসটিআই অনুমোদিত ফাইভ স্টার এনার্জি রেটিং লেবেল ব্যবহার করতে পারবে। এনার্জি রেটিংয়ের ক্ষেত্রে যতো বেশি তারকা (স্টার), পণ্যটি ততো বেশি শক্তি বা এনার্জি এফিশিয়েন্ট। কনকা রেফ্রিজারেটরের ফ্যাক্টরি আনুষ্ঠানিকভাবে পরিদর্শনের পর বাংলাদেশের উৎপাদিত প্রতিটি মডেলের নমুনা সংগ্রহ করে তা বিএসটিআই-এর পরীক্ষাগারে পরীক্ষার পর প্রাপ্ত উচ্চমানের ফলাফলের ভিত্তিতেই বিএসটিআই এই অনুমোদন প্রদান করেছে। যার ফলে বাংলাদেশে একমাত্র এই প্রতিষ্ঠানের উৎপাদিত প্রতিটি পণ্যই (*****) 5 Star Rating প্রাপ্ত হয়েছে।

উল্লেখ্য, নিজস্ব স্বকীয়তা ও গুণগত মান নিয়ে সারা বিশ্বের ১২০টিরও বেশি দেশের গ্রাহক ও ক্রেতার আস্থা অর্জন করে 'কনকা' ব্র্যান্ড দুই যুগ আগে ইলেক্ট্রো মার্ট লিমিটেড-এর হাত ধরে বাংলাদেশে তার বিপণন কার্যক্রম শুরু করে। এই দেশের ইলেকট্রনিকস বাজারে অচিরেই একটি উন্নতমানের ইলেকট্রনিক্স পণ্যসামগ্রী প্রস্তুতকারী নির্ভরযোগ্য আন্তর্জাতিক ব্র্যান্ড হিসেবে 'কনকা' প্রতিষ্ঠা অর্জন করে। বাংলাদেশে ক্রমাগতভাবে কনকা ব্র্যান্ডের রেফ্রিজারেটর ও ফ্রিজারের চাহিদা বৃদ্ধি পাওয়ায়, এবং এদেশের ক্রেতাদের কাছে আন্তর্জাতিক মানের, পরিবেশবান্ধব ও আকর্ষণীয় মূল্যের রেফ্রিজারেটর ও ফ্রিজার সরবরাহের লক্ষ্যে ২০১৯ সালের বছরান্তে এই কনকা ব্র্যান্ডের জন্য ঢাকার অদূরে নারায়ণগঞ্জ জেলার সোনারগাঁওয়ে একটি অত্যাধুনিক, সম্পূর্ণ উৎপাদনক্ষম কারখানা প্রতিষ্ঠা করা হয়। এই কারখানাটি গণচীনের বিখ্যাত কনকা কোম্পানির সম্পূর্ণ কারিগরি সহযোগিতায় এবং ইউরোপের বিভিন্ন অত্যাধুনিক মেশিনের সমন্বয়ে স্থাপন করা হয়েছে। এই কারখানায় উৎপাদিত আন্তর্জাতিক মানের পণ্যসমূহ প্রতিযোগিতামূলক মূল্যে এদেশের সাধারণ ক্রেতাদের কাছে সরবরাহ করা হচ্ছে। দেশ-বিদেশের দক্ষ ইঞ্জিনিয়ারদের অক্লান্ত প্রচেষ্টায় সম্পূর্ণরূপে পরিবেশবান্ধব কাঁচামালের ব্যবহার নিশ্চিত করে একটি আন্তর্জাতিক মানের R&D সেন্টারের মাধ্যমে পণ্যের শতভাগ গুণগত মান নিশ্চিত করা হয়। যা ইতিমধ্যে সারাদেশের ক্রেতাদের নিকট সমাদৃত হয়েছে।

কনকা রেফ্রিজারেটরের বৈশিষ্ট্য: কনকা রেফ্রিজারেটর লাইন আপে বর্তমানে সর্বনিম্ন ১৪,৭০০/= টাকা থেকে শুরু করে সর্বোচ্চ 1,14,000/= টাকার মূল্যমানের ৫০টিরও বেশি মডেল রয়েছে। এর ভেতরে বাতাসের আর্দ্রতা ও শীতলতা সমন্বয়ের ব্যবস্থা রয়েছে। যার ফলে যেকোনো টাটকা সবজি সাত থেকে দশদিন পর্যন্ত বাগানের তরতাজা সবজির মতোই সতেজ রাখা সম্ভব হয়। এছাড়া অ্যাকটিভ কার্বন ডিউডোরাইসার ডিভাইস থাকায় খাবার দীর্ঘদিন থাকে সম্পূর্ণ ফ্রেশ ও দুর্গন্ধমুক্ত। আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত ফাইভ স্টার অধিক এনার্জি সেভিংস

সিস্টেম ব্যবহারের কারণে এই রেফ্রিজারেটর সর্বোচ্চ ৭১ শতাংশ পর্যন্ত বিদ্যুৎ খরচ সাশ্রয় করতে সক্ষম। সর্বনিম্ন ১২৫ ভোল্ট থেকে সর্বোচ্চ ২৬৫ ভোল্ট পর্যন্ত ইলেকট্রিক ভোল্টে কনকা ফ্রিজ স্বাচ্ছন্দ্যের সাথে চালানো সম্ভব।

সম্পূর্ণরূপে ১০০% ফুড গ্রেড সম্পন্ন মেটেরিয়াল ব্যবহারের ফলে যেকোনো খাবারের ফুড ভ্যালু শতভাগ রক্ষা করা সম্ভব। এর ডিজিটাল কন্ট্রোল মিটারের মাধ্যমে ফ্রিজের বাইরে থেকেও এর টেম্পারেচার নিয়ন্ত্রণ করা যায়। এছাড়াও রয়েছে:

· মাল্টি গিয়ার টেমপারেচার অ্যাডজাস্টেবল নব।
· মালটি ফাস্ট কুলিং মোডস।
· এলইডি ডিসপ্লে মডিউল।
· ডোর ওপেন অ্যালার্ম ফাংশন।
· ইনটেলিজেন্ট ফল্ট অ্যালার্ম ফাংশন।

কনকা ফ্রিজারের বৈশিষ্ট্য: বাংলাদেশে উৎপাদিত কনকা ফ্রিজার-এই প্রথমবারের মতো সংযোজিত হয়েছে বিশেষ ডুয়াল অপারেশন মোড। এর ডিজিটাল কন্ট্রোল মিটারের মাধ্যমে ক্রেতা ফ্রিজারটিকে রেফ্রিজারেটর হিসেবে ব্যবহার করতে পারবেন, আবার প্রয়োজনে ফ্রিজার হিসেবেও ব্যবহার করতে পারবেন। এছাড়াও রয়েছে:

· স্লো মোড (Slow Mode) ডোর ক্লোজ সিস্টেম।
· ভিতরে এলইডি লাইট।
· এই ফ্রিজারে সর্বোচ্চ ৭১ শতাংশ পর্যন্ত বিদ্যুৎ খরচ সাশ্রয় করা সম্ভব।
· এই কনকা ফ্রিজারে বিল্ট-ইন অটোমেটেড ভোল্টেজ স্ট্যাবিলাইজার ব্যবহার করা হয়েছে। যাতে করে একজন ক্রেতা ও পণ্যটি থাকবে শতভাগ সুরক্ষিত।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা