kalerkantho

২০০০ লাইন ক্রু নিয়োগ দেবে পল্লী বিদ্যুত্

বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের আওতাধীন পল্লী বিদ্যুত্ সমিতিতে চুক্তিভিত্তিক লাইন ক্রু (লেভেল-১) পদে ২০০০ জনকে (পুরুষ) নিয়োগ দেওয়া হবে। ১০ এপ্রিল ইত্তেফাকের ১৩ নম্বর পৃষ্ঠায় এসংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়। বিস্তারিত জানাচ্ছেন পাঠান সোহাগ

১৭ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৪ মিনিটে



২০০০ লাইন ক্রু নিয়োগ দেবে পল্লী বিদ্যুত্

ঢাকা পল্লী বিদ্যুত্ সমিতি-১-এর মহাব্যবস্থাপক

মো. আজাহার আলী জানান, বাছাই পরীক্ষা হবে দুই ধাপে। প্রথমে শারীরিক পরীক্ষা। সারা দেশের ৬৪ জেলার পল্লী বিদ্যুত্ সমিতি অফিসে এই পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। প্রার্থীকে ২৩ এপ্রিল সকাল ৯টায় নিজ হাতে পূরণ করা আবেদনপত্র, অন্যান্য কাগজপত্রসহ উপস্থিত থাকতে হবে।

শারীরিক পরীক্ষায় প্রার্থীর উচ্চতা, ওজন ও বুকের মাপ দেখা হবে। শারীরিক সক্ষমতা প্রমাণে ৭ মিনিটে ১ মাইল মিনি ম্যারাথন দৌড়ানোর পাশাপাশি প্যারালাল বারে টানা পাঁচবার ওঠা-নামা করতে হবে। এর মাধ্যমে প্রার্থীর হূদরোগ ও প্রেসার আছে কি না যাচাই করা হবে। এই পরীক্ষায় পাস করার পর লিখিত পরীক্ষা। সব শেষে প্রশিক্ষণ।

 

আবেদনের যোগ্যতা

এসএসসি বা সমমানের পরীক্ষায় কমপক্ষে দ্বিতীয় বিভাগ অথবা জিপিএ ৫-এর ২.৫০ অথবা জিপিএ ৪-এর ২ হলে বাছাই পরীক্ষায় অংশ নেওয়া যাবে। বাছাইয়ের ক্ষেত্রে বিজ্ঞান বিভাগের প্রার্থীদের প্রাধ্যান্য দেওয়া হবে। বয়স হতে হবে ১৮ থেকে ২২ বছর (১ এপ্রিল ২০১৯ তারিখে)।

 

শারীরিক যোগ্যতা

উচ্চতা অন্তত ৫ ফুট ৪ ইঞ্চি, ওজন ১১০ পাউন্ড এবং বুকের মাপ স্বাভাবিক অবস্থায় ৩০ ইঞ্চি এবং স্ফীত অবস্থায় ৩২ ইঞ্চি হতে হবে। কঠোর পরিশ্রমসহ বৈদ্যুতিক খুঁটি ও স্থাপনায় ওঠা-নামার সক্ষমতা থাকতে হবে। অবশ্যই দৈহিক পরিশ্রম করার সদিচ্ছা থাকতে হবে। কাজের মাধ্যমে শিক্ষণের আগ্রহ ও সক্ষমতা থাকতে হবে।

 

আবেদন প্রক্রিয়া

পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের ওয়েবসাইট (.িত্বন.মড়া.নফ) অথবা সংশ্লিষ্ট পল্লী বিদ্যুত্ সমিতির ওয়েবসাইট থেকে নির্ধারিত আবেদন ফরম (ফরম-১) ডাউনলোড করে এ-৪ সাইজের কাগজে প্রিন্ট করতে হবে। নিজ হাতে আবেদন ফরমটি যথাযথ পূরণ করে এর সঙ্গে এসএসসি বা সমমানের পরীক্ষার মূল/সাময়িক সনদপত্র, নাগরিকত্ব সনদ, দুই কপি পাসপোর্ট আকারের ছবি (প্রথম শ্রেণির কর্মকর্তার মাধ্যমে সত্যায়িত) এবং ১০০ টাকা মূল্যমানের ক্রসড পোস্টাল অর্ডার/পে-অর্ডার/ব্যাংক ড্রাফট নিজ নিজ জেলার সংশ্লিষ্ট পল্লী বিদ্যুত্ সমিতির ‘সিনিয়র জেনারেল ম্যানেজার’-এর অনুকূলে সংযুক্ত করতে হবে। শারীরিক পরীক্ষার দিন আবেদনপত্র, উল্লিখিত কাগজপত্রসহ উপস্থিত থাকতে হবে।

 

লিখিত (এমসিকিউ) পরীক্ষা ও প্রস্তুতি

মহাব্যবস্থাপক মো. আজাহার আলী জানান, লিখিত পরীক্ষা হবে এমসিকিউ (বহু নির্বাচনী প্রশ্ন) পদ্ধতিতে। মোট কত নম্বরের পরীক্ষা হবে, সেটা বোর্ড নির্ধারণ করবে। গত বছর ১০০ নম্বরে এমসিকিউ পরীক্ষা হয়েছিল। পরীক্ষায় সাধারণত বাংলা, ইংরেজি, গণিত, সাধারণ জ্ঞান ও বিজ্ঞানের ওপর প্রশ্ন থাকে। পরীক্ষায় পাস করলে প্রার্থীদের এক মাসের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। প্রশিক্ষণের সময় প্রার্থীদের ভাতা দেওয়া হবে। সফল প্রশিক্ষণ শেষে যোগ্য প্রার্থীরা চূড়ান্তভাবে নিয়োগ পাবেন।

 

কাজ কী, বেতন কত?

টাঙ্গাইল পল্লী বিদ্যুত্ সমিতির মহাব্যবস্থাপক রাম শংকর রায় জানান, লাইন ক্রুদের বিদ্যুত্ সংযোগের বিভিন্ন কাজ, যেমন—খুঁটি সংযোজন, লাইন মেরামত ইত্যাদি করতে হবে। এ ছাড়া কর্তৃপক্ষ যেকোনো কাজ দিতে পারে। সব ধরনের কাজ করার জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে।

নিয়োগপ্রাপ্তদের বেতন ধরা হয়েছে ২৫০০০ টাকা। সঙ্গে ভাতা ও অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা আছে।

 

শর্ত

চাকরিতে যোগ দেওয়ার সময় ১০০০০ টাকা নিরাপত্তা জামানত (চুক্তি শেষে ফেরতযোগ্য) হিসেবে দিতে হবে। নিয়োগপ্রাপ্ত লাইন ক্রুরা বছরে বছরে চুক্তি সাপেক্ষে একটি পবিসে (পল্লী বিদ্যুত্ সমিতি) সর্বোচ্চ ৯টি চুক্তির মেয়াদ পর্যন্ত চাকরি করতে পারবেন।

আবেদনপত্রে প্রার্থীর উল্লিখিত কোনো তথ্য ভুল বা অসম্পূর্ণ হলে প্রার্থিতা বাতিল হবে। লাইন ক্রুদের চাকরি কখনোই নিয়মিত করা হবে না। নবম চুক্তি শেষ হওয়ার পর কর্তৃপক্ষের মূল্যায়ন প্রতিবেদনের ভিত্তিতে কর্মীদের অন্য পবিসে নিয়োগ দেওয়া হতে পারে। লাইন ক্রুরা সর্বোচ্চ ৪৫ বছর পর্যন্ত চাকরি করতে পারবেন।

 

মন্তব্য