kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২৭ জুন ২০১৯। ১৩ আষাঢ় ১৪২৬। ২৩ শাওয়াল ১৪৪০

ক্যাম্পাস টিপস

কম্পাস নেই এখন কী করবে?

জ্যামিতি পরীক্ষায় একটা বৃত্ত আঁকতে হবে। এদিকে তুমি কম্পাস আনতে একেবারেই ভুলে গেছ? খালি হাতে আঁকতে গেলে সেটা হয়ে যাবে কাকের ডিম? ভয় নেই। পেনসিল যদি থাকে হাতের কাছে, বৃত্ত আঁকা থেকে তোমাকে কে রোখে! চলো দেখে নিই কম্পাস ছাড়া বৃত্ত আঁকার দুটি অভিনব কৌশল। কাজী ফারহান হোসেন পূর্ব

১৭ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কম্পাস নেই

এখন কী করবে?

১. তিনটি পেনসিল ও তিনটি রাবার ব্যান্ডের গল্প!

এ যাত্রায় বাঁচতে হলে তোমার তিনটি পেনসিল লাগবে। ধরে নাও পেনসিলের চোখা অংশটি পা আর অন্য অংশটি মাথা। এখন দুটি পেনসিলের মাথা রাবার ব্যান্ড দিয়ে বেঁধে ইংরেজি ভি আকৃতি বানিয়ে ফেলো। অর্ধেক কাজ কিন্তু শেষ! এবার পেনসিল দুটির পায়ের সঙ্গে আরেকটি পেনসিলের পা ও মাথা রাবার ব্যান্ড দিয়ে বেঁধে ফেলো। এই কাজটা তুমি একটা কলম দিয়েও করতে পারবে। জিনিসটা এখন ত্রিভুজের মতো দেখাবে। এবার যেকোনো একটি পা বৃত্তের কেন্দ্রে রেখে অন্য পা ঘোরাও। এই তো হয়ে গেল তোমার বৃত্ত। এই কম্পাসের সবচেয়ে আকর্ষণীয় ফিচার হলো, তুমি তোমার প্রয়োজনমতো পুঙ্খানুপুঙ্খ মাপের ব্যাসার্ধ নিতে পারবে। ভি-এর প্রশস্ত অংশটাকে স্কেলের সঙ্গে মিলিয়ে নিলেই হলো!

২. এত বড় কম্পাস পাব কোথায়?

এখন আরেক সমস্যা হাজির। হাতের কাছে কম্পাস ঠিকই আছে। তবে বৃত্ত আঁকতে হবে ইয়া বড়! কম্পাসে তো সেটি আর ধরবে না! এখন কিন্তু বৃত্তের বাইরে চিন্তা করতে হবে। ঝটপট একটা আয়তাকার লম্বা টেকসই কাগজের টুকরো নিয়ে নাও। যে বৃত্ত আঁকবে, তার ব্যাসার্ধের চেয়ে কাগজের দৈর্ঘ্যটা একটু বড় হলে ভালো। চলো এই কাগজটার নাম দিই আয়ত লম্বু। এবার এই আয়ত লম্বুর এক প্রান্তকে একটা থাম্ব পিন দিয়ে অথবা একটি পেনসিল দিয়ে কাগজের সঙ্গে আটকিয়ে ঠিক ব্যাসার্ধ সমান দূরে অন্য প্রান্তে একটি ছিদ্র করো। ওই ছিদ্রে পেনসিলের শিষ প্রবেশ করিয়ে ৩৬০ ডিগ্রি ঘোরালেই দেখবে, তোমার ইয়া বড় বৃত্ত হাজির!

 


খবরটি ইউনিকোড থেকে বাংলা বিজয় ফন্টে কনভার্ট করা যাবে কালের কণ্ঠ Bangla Converter দিয়ে

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা