kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১ ডিসেম্বর ২০২২ । ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৬ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

দেশি পর্যটকে জমজমাট হয়ে উঠছে চট্টগ্রাম

আসিফ সিদ্দিকী, চট্টগ্রাম   

২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ১০:৫৬ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দেশি পর্যটকে জমজমাট হয়ে উঠছে চট্টগ্রাম

করোনা মহামারির ধাক্কা কাটিয়ে চট্টগ্রামের জনপ্রিয় পর্যটন স্থানগুলোতে দেশি পর্যটক বেড়েছে। কিন্তু এখনো স্বাভাবিক অবস্থায় ফেরেনি। ব্যবসায়ীরা বলছেন, পুরোপুরি স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরতে ডিসেম্বর নাগাদ সময় লাগবে।

চট্টগ্রামের একমাত্র ফাইভ স্টার হোটেল রেডিসন ব্লু চিটাগাং বে ভিউ প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আবু সাঈদ মোহাম্মদ আলী বলেন, ‘বিভিন্ন ব্যাবসায়িক সেমিনার-অনুষ্ঠান ঘিরে কিছু বিদেশি হোটেলে অবস্থান করছেন।

বিজ্ঞাপন

আর ঢাকার কিছু অভিজাত শ্রেণির পর্যটক সড়কপথে কক্সবাজার বা পার্বত্য এলাকা ঘুরতে যাওয়ার সময় রেডিসন হোটেলে রাত যাপন করছেন। ফিরতি পথেও আমাদের সেবা নিচ্ছেন। এভাবে দেশি-বিদেশি পর্যটক আসছেন হোটেলে। ’

চট্টগ্রামে আরো তিনটি স্টার হোটেল আছে। এর মধ্যে পেনিনসুলা হোটেল, বেস্ট ওয়েস্টার্ন ও আগ্রাবাদ হোটেল।

পেনিনসুলা হোটেলের কম্পানি সচিব ও সিএফও মোহাম্মদ নুরুল আজিম বলেন, ‘চট্টগ্রামের মেগাপ্রকল্পে কর্মরত কনসালট্যান্ট যাঁরা স্বল্প সময়ের জন্য চট্টগ্রাম আসেন, তাঁদের বড় অংশ আমাদের সঙ্গেই থাকেন। সার্ভিসে ভাড়া বাড়াইনি। বিদেশি পর্যটকদের ভালো সাড়া পাচ্ছি। ’

চট্টগ্রাম শহরে জনপ্রিয় পর্যটক আকর্ষণীয় স্থান। বিভিন্ন শিল্পপ্রতিষ্ঠান, করপোরেট গ্রুপ, বিভিন্ন অ্যাসোসিয়েশনের বার্ষিক অনুষ্ঠানের জন্য এই স্থান জনপ্রিয়। সেই স্থানটিও এখন পুরোদমে জমজমাট হয়ে ওঠেনি।

ফয়েস লেক পরিচালনাকারী সংস্থা কনকর্ড এন্টারটেইনমেন্ট কম্পানি লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজার (মার্কেটিং) বিশ্বজিত ঘোষ বলেন, ‘২০২১ সালের চেয়ে এখন ভালো সাড়া পাচ্ছি। কিন্তু করোনা মহামারির আগের অবস্থানে পৌঁছতে ডিসেম্বর নাগদ সময় লাগবে। ’



সাতদিনের সেরা