kalerkantho

বুধবার । ২৮ শ্রাবণ ১৪২৭। ১২ আগস্ট ২০২০ । ২১ জিলহজ ১৪৪১

ডা. সাবরিনা ও আরিফুলের ব্যাংক হিসাব জব্দ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৩ জুলাই, ২০২০ ২০:০৩ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ডা. সাবরিনা ও আরিফুলের ব্যাংক হিসাব জব্দ

জেকেজি হেলথকেয়ার ও ওভাল গ্রুপের চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা শারমিন হোসেন ও এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আরিফুল চৌধুরী এবং তাদের স্বার্থ সংশ্লিস্টষ্ট ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের সকল ব্যাংক হিসাব ৩০ দিনের জন্য জব্দ করেছে দেশের কেন্দ্রীয় আর্থিক গোয়ন্দা সংস্থা বাংলাদেশ ফিন্যান্সিয়াল ইন্টেলিজেন্স ইউনিট (বিএফআইইউ)। সেই সঙ্গে আগামী ৫ কার্যদিবসের মধ্যে এ সংক্রান্ত তথ্য বিএফআইইউতে পাঠানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

আজ সোমবার বিএফআইইউ থেকে এ সংক্রান্ত চিঠি দেশের সব তফসিলী ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানে পাঠানো হয়েছে। বিএফআইইউর দায়িত্বশীল সূত্র কালের কণ্ঠকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে। 

চিঠিতে বলা হয়েছে, জেকেজি হেলথকেয়ার ও ওভাল গ্রুপর চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা শারমিন হোসেন ও এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আরিফুল চৌধুরী এবং তাদের স্বার্থ সংশ্লিস্ট ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের সকল ব্যাংক হিসাব ৩০ দিনের জন্য জব্দ থাকবে। মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন ২০১২ এর (২৩)(১)(গ) ধারার প্রদত্ত ক্ষমতাবলে এ নির্দেশ প্রদান করা হলো। 

গতকাল রবিবার করোনাভাইরাস পরীক্ষার ভুয়া প্রতিবেদন দেওয়ার মামলায় জেকেজি হেলথকেয়ার চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা আরিফ চৌধুরীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এর আগে টাকার বিনিময়ে নমুনা সংগ্রহ ও ভুয়া প্রতিবেদন দেওয়ার অভিযোগে তেজগাঁও বিভাগের পুলিশ ডা. সাবরিনা আরিফ চৌধুরীর স্বামী আরিফুল হক চৌধুরীসহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করে।

গ্রেপ্তার বাকি চারজন হলেন- হুমায়ুন কবীর, তার স্ত্রী তানজীনা পাটোয়ারী, সাইদ চৌধুরী ও আলমান। এর মধ্যে হুমায়ুন ও তানজীনা একসময় জেকেজিতে কর্মরত ছিলেন। বাকি দুজন এখনো জেকেজিতে কর্মরত। 

পুলিশ জানায়, জেকেজি হেলথ কেয়ার থেকে মোট ২৭ হাজার করোনার রিপোর্ট দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে ১১ হাজার ৫৪০ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে আইইডিসিআরের মাধ্যমে। এই রিপোর্টগুলো ছাড়া বাকি ১৫ হাজার ৪৬০টি রিপোর্টই ভুয়া। টাকা নিয়ে মানুষের হাতে ধরিয়ে দেয়া হয়েছে কম্পিউটারে বানানো সনদ। অথচ এই রিপোর্টগুলোর জন্য তারা জনপ্রতি ৫-১০ হাজার টাকা করে নিয়েছে। আর রিজেন্ট হাসপাতালও একইভাবে নমুনা পরীক্ষা না করেই ভুয়া রিপোর্ট দিত।

এদিকে, রবিবার জেকেজি হেলথের চেয়ারম্যান ডা. সাবরিনা আরিফ চৌধুরী ও এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) আরিফুল চৌধুরীর ব্যাংক হিসাব জব্দে বিভিন্ন ব্যাংক চিঠি পাঠায় জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। একই সঙ্গে তাদের হিসাবের বিস্তারিত তথ্য-উপাত্তও জানতে চেয়েছে প্রতিষ্ঠানটির কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সেল (সিআইসি)।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা