kalerkantho

শনিবার । ০৭ ডিসেম্বর ২০১৯। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৯ রবিউস সানি ১৪৪১     

বাংলাদেশে কার্যালয় চায় তুরস্কের ব্যবসায়ীরা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

২২ নভেম্বর, ২০১৯ ১৪:১৫ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাংলাদেশে কার্যালয় চায় তুরস্কের ব্যবসায়ীরা

ব্যবসা পরিচালনার জন্য বাংলাদেশে নিজস্ব কার্যালয় স্থাপন করতে চায় তুরস্কের ব্যবসায়ীরা। অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল গতকাল দুপুরে তুরস্কের আঙ্কারায় দেশটির ভাইস প্রেসিডেন্ট ফুয়াত ওকতের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন। সে সময় বাংলাদেশে ব্যবসা কার্যালয় স্থাপনের আগ্রহের কথা জানানো হয়।

শুক্রবার অর্থ মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা গাজী তৌহিদুল ইসলামের পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বাংলাদেশের রপ্তানি কীভাবে তুরস্কে তিন বিলিয়ন ডলার করা যায় সে বিষয়ের আলোচনায় দেশটির ভাইস প্রেসিডেন্ট বলেন, তুরস্ক ও বাংলাদেশের কূটনেতিক সম্পর্ক অত্যন্ত ভালো। দ্বিপাক্ষিক ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে একে অন্যের প্রতিযোগী না হয়ে ব্যবসা করতে হবে।

এছাড়া বাংলাদেশে তুরস্কের কার্যালয় খোলার বিষয়টি এ বিষয়টি বিবেচনা করা হবে বলে অর্থমন্ত্রী আশ্বস্ত করেন।

যেসব দ্রব্য উৎপাদনে তুরস্ক নিজেই ভালো করছে সেসব দ্রব্য নয়, বরং অন্য দ্রব্যসমূহ এবং যেগুলোর প্রতি তুরস্কের চাহিদা  রয়েছে সেই দ্রব্যেগুলো রপ্তানির সুযোগ নিয়ে ভালো করতে পারে বাংলাদেশ। এসব বিষয়ে তুরস্ক বাংলাদেশকে সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন দেশটির ভাইস প্রেসিডেন্ট।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ কৃষিপণ‌্য, পাট ও পাটজাত দ্রব্য, ফ্রুট প্রসেসিংয়ের মাধ্যমে বাণিজ্য বাড়াতে পারে। সেক্ষেত্রে তুরস্কও সহায়তা করতে পারে। যেহেতু বাংলাদেশ গরু উৎপাদনে সফলতা অর্জন করেছে এবং গুণগত দিক থেকে যেকোনো দেশের তুলনায় উৎকৃষ্ট মানের মাংস উৎপাদন করছে, সেহেতু এগুলোও রপ্তানির আওতায় আনা সম্ভব। হালাল সার্টিফিকেশনের ক্ষেত্রে তুরস্ক বাংলাদেশকে সহায়তা করতে পারে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা