kalerkantho

শুক্রবার । ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯। ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ৮ রবিউস সানি ১৪৪১     

পেঁয়াজের দাম বেড়েছে কেজিতে ৩০ টাকা

কালের কণ্ঠ অনলাইন   

১১ নভেম্বর, ২০১৯ ২০:৩৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পেঁয়াজের দাম বেড়েছে কেজিতে ৩০ টাকা

ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের কারণে গত দুইদিন চট্টগ্রাম বন্দর দিয়ে পেঁয়াজ খালাসে ব্যহত হয়েছে। এতে রাজধানীর বাজারে আমদানি করা পেঁয়াজের পাঁশাপাশি দেশি পেয়াজের দাম কেজিতে ২০ থেকে ৩০ টাকা পর্যন্ত বেড়েছে। 

এ বিষয়ে কারওয়ান বাজারের পেঁয়াজ বিক্রেতা মোতালেব হক কালের কণ্ঠকে বলেন, বাজারে চাহিদার তুলনায় পেঁয়াজ সরবরাহে ঘাটতি রয়েছে। এই ঘাটতির কারণ ঘুর্ণিঝর বুলবুলের কারণে গত দুইদিন আমদানি করা পেঁয়াজ খালাস ব্যহত হয়েছে। ফলে আমরা পাইকার থেকে বাড়তি দামে পেঁয়াজ কিনেছি। 

পেঁয়াজের দাম নতুন করে বেড়েছে সেই চিত্র উঠে এসেছে সরকারি সংস্থা ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) নিয়মিত বাজার মনিটরিং প্রতিবেদনেও। রাজধানির প্রায় ১৪টি বাজারে খোঁজখবর নিয়ে তৈরি করা সোমবারের প্রতিবেদনে কেজিতে ১০ টাকা দাম বৃদ্ধির তথ্য দেওয়া হয়েছে। যদিও টিসিবির দামের সঙ্গে বাজারের দামে বিস্তর ফারাক পাওয়া গেছে। 

টিসিবির তথ্যানুযায়ী, সোমবার রাজধানির বাজারে প্রতি কেজি দেশি পেয়াজ বিক্রি হয়েছে ১৩০ থেকে ১৩৫ টাকা এবং আমদানি করা পেঁয়াজ ১১৫ থেকে ১২৫ টাকা। এক সপ্তাহ আগে যা ছিল ১২০ থেকে ১২৫ টাকা ও ১১৫ থেকে ১২০ টাকা। অথচ সোমবারই কারওয়ান বাজার ঘুরে দেখা যায়, প্রতি কেজি দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ১৫০ থেকে ১৬০ টাকা। আর আমদানি করা পেয়াজ বিক্রি হচ্ছে ১২০ থেকে ১৪০ টাকা। এক সপ্তা্হ আগে দেশি পেয়াজের কেজি ছিল ১৪০ থেকে ১৫০ টাকা ও আমদানি করা পেয়াজের দাম ছিল ১১০ থেকে ১৩০ টাকা। এছাড়া গতকাল রসুন ১৬০ থেকে ১৮০ টাকা ও আদা ১৮০ থেকে ২২০ টাকায় বিক্রি হয়েছে।  

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা