kalerkantho

বুধবার । ২৩ অক্টোবর ২০১৯। ৭ কাতির্ক ১৪২৬। ২৩ সফর ১৪৪১                 

ভারতের পেঁয়াজ নিয়ে বিপাকে হিলির ব্যবসায়ীরা

হিলি (দিনাজপুর) প্রতিনিধি   

৬ অক্টোবর, ২০১৯ ০৮:৫৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ভারতের পেঁয়াজ নিয়ে বিপাকে হিলির ব্যবসায়ীরা

পুরনো এলসি করা ৫৭টি ট্রাকে ৯৪৬ মেট্রিক টন পেঁয়াজ গত শুক্রবার হিলি স্থলবন্দরে প্রবেশ করে। ছবি : কালের কণ্ঠ

ভারত থেকে আমদানি করা পেঁয়াজ নিয়ে বিপাকে পড়েছেন হিলি স্থলবন্দরের আমদানিকারকরা। প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৪০ থেকে ৫০ টাকায় বিক্রি করলেও পাইকারের অভাবে খালাসকৃত পেঁয়াজ গুদামে পড়ে রয়েছে।

ভারত সরকার পেঁয়াজ রপ্তানি বন্ধ ঘোষণার আগে ২৮ সেপ্টেম্বরের পুরনো এলসি করা ৫৭টি ট্রাকে ৯৪৬ মেট্রিক টন পেঁয়াজ গত শুক্রবার হিলি স্থলবন্দরে প্রবেশ করে। বন্দর দিয়ে দেশে পেঁয়াজ প্রবেশের সঙ্গে সঙ্গে কমেছে পেঁয়াজের দাম। প্রতি কেজি পেঁয়াজ হিলি বন্দরে বিক্রি হচ্ছে ৪০ থেকে ৫০ টাকায়। চার দিন থেকে ওপারে পার্কিংয়ে আটকে থাকায় গরমে অনেক পেঁয়াজ নষ্ট হয়ে গেছে। নষ্ট হওয়া পেঁয়াজ নিয়ে আমদানিকারকরা পড়েছেন বিপাকে।

আমদানিকারক সাইফুল ইসলাম জানান, ওপারে চার দিন আটকে থাকার পর গতকাল ৫৭ ট্রাক পেঁয়াজ দেয় রপ্তানিকারকরা। গরমে পেঁয়াজ নষ্ট হয়ে যাওয়ায় ঘরে পেঁয়াজ বাছাই করা হচ্ছে। ৪০ থেকে ৫০ টাকা কেজি দরে পেঁয়াজ দেওয়া হলেও পাইকাররা নিচ্ছেন না।

তিনি আরো জানান, আগে যে পাইকার ১০ টন পেঁয়াজ নিতেন তিনি বর্তমানে নিচ্ছেন এক টন। এভাবে মানুষ পেঁয়াজ কম খাওয়া শুরু করলে দুই-তিন দিনের মধ্যে পেঁয়াজের বাজার ৩০ থেকে ৩৫ টাকায় নেমে আসবে।

চরফ্যাশন (ভোলা) প্রতিনিধি : চরফ্যাশনে এক বাজারেই পেঁয়াজের দুই ধরনের দাম রাখা হচ্ছে। ফলে ক্রেতারা বিপাকে। জ্যাকব এভিনিউ হকার্স মার্কেটে প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৮০ টাকা। একই বাজারের লঞ্চঘাট, মাছবাজার দোকানগুলোতে প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৮৫ টাকা। শুধু পেঁয়াজ নয়, এক হালি ডিম যদি হয় ৩৫ টাকা তা বাড়িয়ে বিক্রি করছে ৪০ টাকা। চিনিসহ বিভিন্ন পণ্যেরই দাম এক বাজারে দুই রকম বেচাকেনা হচ্ছে। এতে প্রতারিত হচ্ছে গ্রাহক।

স্থানীয় ক্রেতা রমিজ উদ্দিন কালের কণ্ঠকে বলেন, এক বাজারে দুই দর হয় কী করে। আমি সদর বাজার থেকে চিনি কিনলাম ৫৭ টাকা করে। একই চিনি বাজারের পূর্ব মাথা থেকে কিনতে হচ্ছে ৬০-৬২ টাকা দিয়ে। মাহাবুব আলম আপন জানিয়েছেন, পেঁয়াজের গায়ে এখনো আগুন। সদরে ৮০ টাকা বাজারের পূর্ব মাথায় ৮৫ টাকা প্রতি কেজি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে। ক্রেতাদের দাবি বাজার মনিটর না করায় দোকানিরা ইচ্ছা মতো দাম বাড়িয়ে ক্রেতাদের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা