kalerkantho

মঙ্গলবার। ২০ আগস্ট ২০১৯। ৫ ভাদ্র ১৪২৬। ১৮ জিলহজ ১৪৪০

দেশজুড়ে পশুর হাটে জাল নোট ঠেকাতে বসছে বুথ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৩১ জুলাই, ২০১৯ ১০:০৬ | পড়া যাবে ৫ মিনিটে



দেশজুড়ে পশুর হাটে জাল নোট ঠেকাতে বসছে বুথ

জাল নোট শনাক্ত করতে এবারও কোরবানির পশুর হাটে বুথ বসানো হবে। ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের পাশাপাশি দেশজুড়ে সরকার অনুমোদিত কোরবানির পশুর হাটে এসব বুথ বসবে। গতকাল মঙ্গলবার বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রজ্ঞাপনে কোরবানির পশুর হাটে জাল নোট শনাক্তকরণ বুথ বসানোর জন্য সংশ্লিষ্ট ব্যাংকগুলোকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

প্রত্যেকটি হাটে অন্তত দুটি থেকে চারটি ব্যাংকের কর্মকর্তাদের ক্রেতা-বিক্রেতাদের নোট যাচাইকরণ সেবা দেওয়ার কথা বলা হয়েছে। জাল নোট শনাক্তকারী মেশিনের সহায়তায় অভিজ্ঞ ক্যাশ কর্মকর্তাদের দ্বারা হাট শুরুর দিন থেকে ঈদের আগের রাত পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে পশু ব্যবসায়ীদের বিনা খরচে নোট যাচাইসংক্রান্ত সেবা দিতে হবে। ঢাকার বাইরে যেসব জেলায় বাংলাদেশ ব্যাংকের অফিস রয়েছে, সেখানে সংশ্লিষ্ট সিটি করপোরেশন বা পৌরসভার অনুমোদিত পশুর হাটগুলোতে স্থানীয় বাংলাদেশ ব্যাংকের নেতৃত্বে গৃহীত অনুরূপ ব্যবস্থায় প্রয়োজনীয় সহায়তা দেওয়ার জন্যও কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা রয়েছে।

বাংলাদেশ ব্যাংকের অফিস নেই এমন জেলাগুলোতে সিটি করপোরেশন, পৌরসভা ও থানা-উপজেলার অনুমোদিত পশুর হাটে বিভিন্ন ব্যাংকের এসংক্রান্ত দায়িত্ব বণ্টনের জন্য সোনালী ব্যাংকের চেস্ট শাখাগুলোকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। সোনালী ব্যাংকের চেস্ট শাখার বণ্টিত দায়িত্ব অনুযায়ী অন্যান্য ব্যাংকের জেলা ও উপজেলাপর্যায়ের শাখাগুলোও যাতে পশুর হাটগুলোতে নোট যাচাইসংক্রান্ত সেবা দেয়, সে বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

বুথ স্থাপন কার্যক্রমের সুবিধার্থে ও প্রয়োজনীয় সহযোগিতার জন্য সংশ্লিষ্ট সিটি করপোরেশন কর্তৃপক্ষ, জেলা মিউনিসিপ্যালিটি কর্তৃপক্ষ এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বা সংশ্লিষ্ট পৌরসভা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ স্থাপন করা এবং সার্বিক নিরাপত্তার জন্য সংশ্লিষ্ট পুলিশ, র‌্যাব ও আনসার কর্তৃপক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ করার নির্দেশনা রয়েছে প্রজ্ঞাপনে। বুথে নোট যাচাইকালে কোনো জাল নোট ধরা পড়লে, সে ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। বুথে ব্যাংকের নাম ও তার সঙ্গে ‘জাল নোট শনাক্তকরণ বুথ’ উল্লেখ করে ব্যানার বা নোটিশ প্রদর্শন করতে হবে। একই সঙ্গে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিসংবলিত ১০০, ৫০০ ও ১০০০ টাকার নোটের নিরাপত্তা বৈশিষ্ট্যসংবলিত পোস্টারটি প্রদর্শন করতে হবে। এ ছাড়া ব্যাংক নোটের নিরাপত্তা বৈশিষ্ট্যসংবলিত ভিডিও চিত্র ব্যাংকের শাখাগুলোতে ঈদের আগে পাঁচ কর্মদিবসব্যাপী গ্রাহকদের জন্য স্থাপিত টিভি মনিটরগুলোতে (যদি না থাকে সে ক্ষেত্রে টিভি মনিটর স্থাপন করে) পুরো ব্যাংকিং সময় পর্যন্ত প্রদর্শন করতে হবে। দায়িত্ব পালনকারী কর্মকর্তাদের ব্যাংকের প্রযোজ্য বিধি অনুযায়ী প্রয়োজনীয় আর্থিক সুযোগ-সুবিধাও দিতে হবে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের কোরবানির পশুর হাটে দায়িত্বপ্রাপ্ত ব্যাংকগুলো হচ্ছে—উত্তর শাহজাহানপুর খিলগাঁও রেলগেট বাজারের মৈত্রী সংঘের মাঠসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গায় এবি ও ব্র্যাক ব্যাংক, ঝিগাতলা হাজারীবাগ মাঠসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গায় এক্সিম ও এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংক, লালবাগের রহমতগঞ্জ খেলার মাঠসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গায় ন্যাশনাল ও মার্কেন্টাইল ব্যাংক, কামরাঙ্গীর চর ইসলাম চেয়ারম্যান বাড়ির মোড় থেকে দক্ষিণ দিকে বুড়িগঙ্গা নদীর বাঁধসংলগ্ন জায়গায় ন্যাশনাল ও সাউথইস্ট ব্যাংক, পোস্তগোলা শ্মশানঘাটসংলগ্ন খালি জায়গায় রূপালী ও ইসলামী ব্যাংক, কদমতলী শ্যামপুর বালুর মাঠসংলগ্ন খালি জায়গায় জনতা ও পদ্মা ব্যাংক, খিলগাঁও মেরাদিয়া বাজারসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গায় পূবালী, বাংলাদেশ কৃষি ও ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক, ৩২ নম্বর ওয়ার্ডের সামসাবাদ মাঠসংলগ্ন সিটি করপোরেশনের খালি জায়গায় এনসিসি, বেসিক ও অগ্রণী ব্যাংক, লিটল ফ্রেন্ডস ক্লাবসংলগ্ন গোপীবাগ বালুর মাঠ ও কমলাপুর স্টেডিয়ামসংলগ্ন বিশ্বরোডের আশপাশের খালি জায়গায় ডাচ্-বাংলা, এনসিসি ও সাউথ বাংলা অ্যাগ্রিকালচার অ্যান্ড কমার্স ব্যাংক, শনির আখড়া ও দনিয়া মাঠসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গায় মধুমতি, মিউচুয়াল ট্রাস্ট ও ইসলামী ব্যাংক, ধুপখোলা মাঠসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গা ডাচ্-বাংলা ও সোস্যাল ইসলামী ব্যাংক, ৪১ নম্বর ওয়ার্ড কাউয়ারটেক মাঠসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গায় স্ট্যান্ডার্ড ও আল-আরাফাহ ইসলামী ব্যাংক, দাওকান্দি ইন্দুলিয়া ভাগাপুর নগর (আফতাবনগর ইস্টার্ন হাউজিং মেরাদিয়া বাজার সেকশন-১ ও ২) লোহারপুলের পূর্ব অংশ এবং খোলা মাঠসংলগ্ন আশপাশের খালি জায়গায় ব্র্যাক, রূপালী ও এনআরবি ব্যাংক, আমুলিয়া মডেল টাউনের আশপাশের খালি জায়গায় এনআরবি কমার্শিয়াল ও সোনালী ব্যাংক সেবা দেবে।

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের কোরবানির পশুর হাটে দায়িত্বপ্রাপ্ত ব্যাংকগুলো হচ্ছে—মিরপুর গাবতলী গবাদি পশুর হাটে সোনালী, ইউনিয়ন, সীমান্ত ও পূবালী ব্যাংক, উত্তরা ১৫ নম্বর সেক্টরের ১ ও ২ নম্বর ব্রিজের পশ্চিমের ফাঁকা জায়গায় ইউনাইটেড কমার্শিয়াল, শাহ্জালাল ইসলামী ও ঢাকা ব্যাংক, ভাটারা (সাঈদনগর) পশুর হাটে যমুনা ও জনতা ব্যাংক, ঢাকা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের খেলার মাঠে ওয়ান ও উত্তরা ব্যাংক, মোহাম্মদপুর বুদ্ধিজীবী সড়কসংলগ্ন (বসিলা) পুলিশ লাইনের খালি জায়গা অগ্রণী ও মেঘনা ব্যাংক, মিরপুরের সেকশন-০৬, ওয়ার্ড-০৬ (ইস্টার্ন হাউজিং) খালি জায়গায় সিটি ও প্রিমিয়ার ব্যাংক, মিরপুর ডিওএইচএসসংলগ্ন উত্তর পার্শ্বের সেতু প্রপার্টি হাউজিংয়ের খালি জায়গায় প্রাইম ও মিডল্যান্ড, বাড্ডা ইস্টার্ন হাউজিং (আফতাবনগর) ব্লক-ই, সেকশন-৩ এর খালি জায়গায় ব্যাংক এশিয়া, মার্কেন্টাইল ও প্রাইম ব্যাংক, কাওলা শিয়ালডাঙ্গাসংলগ্ন খালি জায়গায় ট্রাস্ট ও আইএফআইসি ব্যাংক, ভাসানটেক রাস্তার নির্মাণাধীন অব্যবহৃত ও পরিত্যাক্ত অংশ এবং পাশের খালি জায়গা ইস্টার্ন ও উত্তরা ব্যাংক সেবা দেবে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা