kalerkantho

বুধবার । ২৬ জুন ২০১৯। ১২ আষাঢ় ১৪২৬। ২৩ শাওয়াল ১৪৪০

আওয়ামী লীগের এক নেতার পক্ষে আন্দোলন

প্রার্থী চেয়ে রেল অবরোধ

নাটোর প্রতিনিধি   

৭ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



প্রার্থী চেয়ে রেল অবরোধ

নাটোরের বাগাতিপাড়ায় আওয়ামী লীগ প্রার্থী শহিদুল ইসলাম বকুলের চূড়ান্ত মনোনয়নের দাবিতে মালঞ্চি স্টেশনে গতকাল রেললাইন অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে এলাকার নেতাকর্মীরা। ছবি : কালের কণ্ঠ

নাটোর-১ (লালপুর-বাগাতিপাড়া) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত দুজন প্রার্থীর মধ্যে শহিদুল ইসলাম বকুলের মনোনয়ন চূড়ান্ত করার দাবিতে নাটোরের বাগাতিপাড়ায় কাফনের কাপড় পরে রেলপথ অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে তাঁর কর্মী-সমর্থকরা। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে তারা মালঞ্চি-নাটোর রেলপথ অবরোধ করে বকুলের সমর্থনে স্লোগান দিয়ে প্রার্থিতা নিশ্চিত করার দাবি জানায়। এ সময় একটি মালবাহী ট্রেন মালঞ্চি স্টেশনে পৌঁছলে বিক্ষোভকারীরা ট্রেনটি আটকে রাখে। পরে দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে পুলিশ এসে অবরোধকারীদের সরিয়ে দেয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

বিক্ষোভে অংশ নেওয়া জামনগর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি লোকমান হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক মাজেদুর রহমান বলেন, লালপুর-বাগাতিপাড়া আসনে বকুলের পক্ষে নৌকার গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। তাই আমরা বকুলের চূড়ান্ত মনোনয়ন চাই। জামনগর ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান আব্দুল কুদ্দুস বলেন, ‘এ আসনে বকুলের বিকল্প নেই। আমরা তাঁকেই চাই।’ পাকা ইউপি চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন ব্যাঙ্গা বলেন, ‘বকুল ছাত্রলীগের জেলা কমিটির সাবেক সভাপতি ও বর্তমানে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক। তরুণ এ নেতা সাধারণ মানুষের প্রিয় মুখ। এখন আমাদের একটাই চাওয়া, তা হলো বকুলের চূড়ান্ত মনোনয়ন।’ নাটোর জেলা পরিষদ সদস্য হাসানুর রহমান বিপ্লব বলেন, ‘ত্যাগী নেতা হিসেবে বকুল আমাদের সুখে-দুঃখে জড়িয়ে আছেন। তাঁকে আমরা সব সময়ই পাশে পাই। তাই বকুলকেই নাটোর-১ আসনে নৌকার কাণ্ডারি হিসেবে দেখতে চাই।’ জেলা ছাত্রলীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক শহিদুল ইসলাম মোল্লা বলেন, তরুণ নেতা হিসেবে লালপুর-বাগাতিপাড়া এলাকায় বকুল খুবই জনপ্রিয়। তাই তাঁকে নিয়ে বিজয় যতটা সহজ হবে, অন্য প্রার্থীকে নিয়ে তা সম্ভব নয়।

নাটোর-১ আসনে শহিদুল ইসলাম বকুলকে প্রথমে মনোনয়ন দেওয়া হয়। এর পরে গত ২৭ নভেম্বর সাবেক সেনা কর্মকর্তা লে. কর্নেল রমজান আলীকেও আওয়ামী লীগ মনোনয়ন দেয়। এ নিয়ে নেতাকর্মীরা রয়েছে অনিশ্চয়তায়। এ ব্যাপারে রমজান আলীর দাবি, তাঁর সঙ্গে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীসহ সাধারণ মানুষ রয়েছে। এ আসনে বিজয়ের ব্যাপারে তিনি শতভাগ আশাবাদী।

অবরোধের ব্যাপারে নাটোর সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল হাসনাত জানান, বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। অবরোধকারীরা ফিরে গেছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা