kalerkantho

দ্বিতীয় রাজধানী প্রতিদিন

সুবর্ণচরে গণধর্ষণের ঘটনায় আরেকজনের আদালতে স্বীকারোক্তি

নোয়াখালী প্রতিনিধি   

১৩ জানুয়ারি, ২০১৯ ০১:৪৪ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সুবর্ণচরে গণধর্ষণের ঘটনায় আরেকজনের আদালতে স্বীকারোক্তি

নোয়াখালীর সুবর্ণচরের চরজুবলী ইউনিয়নের চর মধ্যবাগ্যা গ্রামে নির্বাচনের দিন রাতে গৃহবধূ গণধর্ষণের ঘটনায় গতকাল শনিবার বিকেলে আরো একজন আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। সে একই এলাকার চান মিয়ার ছেলে হেঞ্জু মাঝি (২৯)। এ নিয়ে গণধর্ষণের ঘটনায় পাঁচজন স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিল।

গতকাল নোয়াখালীর ২ নম্বর আমলি আদালতের বিচারক শোয়েব আহম্মদের কাছে স্বীকারোক্তি দেয় হেঞ্জু মাঝি। আদালত জবানবন্দি রেকর্ড করেন। পরে তাকে জেলহাজতে পাঠানো হয়। তাকে এই গণধর্ষণের ঘটনায় এ পর্যন্ত মোট ১১ জনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। মামলাটি ডিবি পুলিশ তদন্ত করছে। 

জেলা গোয়েন্দা শাখা (ডিবি) পুলিশের পরিদর্শক মো. আবুল খায়ের জানান, তদন্তে জড়িত সন্দেহে আটক হয় হেঞ্জু মাঝি। আদালতে স্বেচ্ছায় ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। এ সময় সে ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে।

প্রসঙ্গত, গত ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত সংসদ নির্বাচনে ধানের শীষে ভোট দেওয়া নিয়ে ওই নারীকে দেখে নেওয়ার হুমকি দিয়েছিল নৌকার সমর্থক একটি গ্রুপ। পরে সেদিন রাতেই গৃহবধূর বাড়িতে গিয়ে তাঁর স্বামী ও সন্তানদের বেঁধে রেখে ঘরের বাইরে নিয়ে ধর্ষণ করে তারা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা