kalerkantho

বৃহস্পতিবার ।  ১৯ মে ২০২২ । ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৭ শাওয়াল ১৪৪৩  

অর্থবছরের প্রথম চার মাস

কৃষিঋণ বিতরণে প্রবৃদ্ধি ১৯%

চলতি অর্থবছরে কৃষি খাতে ব্যাংকগুলোর ২৮ হাজার ৩৯১ কোটি টাকা ঋণ বিতরণের লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৫ ডিসেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কৃষি খাতে ঋণ বিতরণ বাড়ছে। চলতি অর্থবছরের প্রথম চার মাসে (জুলাই-অক্টোবর) কৃষি ও পল্লী খাতে সাত হাজার ৯০৫ কোটি টাকা ঋণ বিতরণ করেছে ব্যাংকগুলো, যা বার্ষিক লক্ষ্যমাত্রার ২৭.৮৪ শতাংশ। এটি গত অর্থবছরের তুলনায় ১৯.২৩ শতাংশ বেশি। যদিও এ সময় কৃষিঋণ আদায় কমে গেছে।

বিজ্ঞাপন

এ সময় কৃষিঋণ আদায় হয়েছে সাত হাজার ৫৯৭ কোটি টাকা। গত অর্থবছরের একই সময়ে আদায় হয়েছিল আট হাজার ৪৫৭ কোটি টাকা। বাংলাদেশ ব্যাংকের হালনাগাদ প্রতিবেদনে এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

চলতি অর্থবছরে কৃষি খাতে ব্যাংকগুলোর ২৮ হাজার ৩৯১ কোটি টাকা ঋণ বিতরণের লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের তথ্য পর্যালোচনায় দেখা যায়, অর্থবছরের প্রথম দিকে কৃষিঋণ বিতরণে ব্যাংকগুলো কিছুটা পিছিয়ে পড়লেও এখন ঋণ বিতরণ বেশ গতিতে বাড়ছে। সর্বশেষ অক্টোবর মাসে দুই হাজার ৬৯৫ কোটি টাকার ঋণ বিতরণ করেছে ব্যাংকগুলো। এর আগের মাস সেপ্টেম্বরে ঋণ বিতরণ হয় দুই হাজার ৫৩৬ কোটি টাকা। এ ছাড়া গত আগস্টে এক হাজার ৭৩২ কোটি এবং জুলাইতে ৯৪২ কোটি টাকার কৃষিঋণ বিতরণ করা হয়।

গত অর্থবছরের জুলাই-অক্টোবর সময়ে কৃষি ও পল্লীঋণ খাতে ছয় হাজার ৬২৯ কোটি টাকা বিতরণ করেছিল ব্যাংকগুলো, যা ছিল ওই বছরের লক্ষ্যমাত্রার ২৫.২২ শতাংশ। আর গত অর্থবছরের পুরো সময়ে লক্ষ্যমাত্রার ৯৭ শতাংশ ঋণ বিতরণ করতে সক্ষম হয় ব্যাংকগুলো। ওই অর্থবছরে কৃষি ও পল্লী খাতে ব্যাংকগুলোর ২৬ হাজার ২৯২ কোটি টাকা ঋণ বিতরণের লক্ষ্যমাত্রার বিপরীতে ঋণ দেওয়া হয় ২৫ হাজার ৫১১ কোটি টাকা।

দেশে করোনার ক্ষতি মোকাবেলায় গত বছর বিভিন্ন খাতে সোয়া এক লাখ কোটি টাকার প্রণোদনা প্যাকেজ ঘোষণা করা হয়। এর মধ্যে কৃষি খাতের জন্য দেওয়া হয় পাঁচ হাজার কোটি টাকার তহবিল। ওই তহবিল থেকে গত ৩০ জুন পর্যন্ত চার হাজার ২৯৫ কোটি টাকার ঋণ বিতরণ করা হয়। এদিকে গত ১৪ সেপ্টেম্বর কৃষি খাতের জন্য দ্বিতীয় মেয়াদে আরো তিন হাজার কোটি টাকার পুনরর্থায়ন তহবিল গঠন করা হয়েছে।