kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২১ নভেম্বর ২০১৯। ৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

দেশ পরিচিতি

মরক্কো

১১ অক্টোবর, ২০১৭ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মরক্কো

আফ্রিকার সবচেয়ে পশ্চিমের দেশ মরক্কো। পূর্বে আলজেরিয়া, উত্তরে ভূমধ্যসাগর ও স্পেন এবং পশ্চিমে আটলান্টিক মহাসাগর। দক্ষিণ দিকের সীমানাটি বিতর্কিত, মরক্কো পশ্চিম সাহারা এলাকার মালিকানা দাবি করে এবং ১৯৭৫ সাল থেকে ওই অঞ্চলের বেশির ভাগ এলাকা দখলে রেখেছে।

৮৫৯ খ্রিস্টাব্দে মরক্কোর ফেস শহরে প্রতিষ্ঠিত আল-কারাউইন ইউনিভার্সিটি বিশ্বের প্রথম বিশ্ববিদ্যালয়। এটি একমাত্র আফ্রিকান দেশ, যা আফ্রিকান ইউনিয়নের সদস্য নয়। সাংবিধানিক রাজতন্ত্রের দেশটি আরব লিগ, ওআইসি, গ্রুপ অব ৭৭ ইত্যাদি জোটের সদস্য ও ন্যাটোর মিত্র দেশ।

আরবি শব্দ মরক্কোর অর্থ ‘পশ্চিমের রাজ্য’। এই অঞ্চলটি আল-মাঘরেব বা ‘দূরতম পশ্চিম’ নামে পরিচিত ছিল। মরক্কো নামটি এসেছে দেশটির পূর্বের রাজধানী মারাক্কেশ হতে, যার অর্থ স্রষ্টার দেশ।

মরক্কো উত্তর আফ্রিকার একমাত্র দেশ, যেখানে কখনোই অটোমান শাসকদের রাজত্ব ছিল না। ১৯১২ সালে ফরাসি ও স্প্যানিশ ঔপনিবেশিক শক্তি মরক্কোকে ভাগ করে নেয়। দেশটি স্বাধীন হয় ১৯৫৬ সালে। দেশটির সংস্কৃতিতে আরব, আদিবাসী বারবার, সাব-সাহারান আফ্রিকা ও ইউরোপীয়দের প্রভাব রয়েছে। অর্থনৈতিক প্রগতি ও আধুনিকতার কারণে প্রতিবেশী দেশগুলোর কাছে মরক্কো একটি মডেল।

এক নজরে

পুরো নাম : কিংডম অব মরক্কো।

রাজধানী : রাবাত।

সর্ববৃহত্ শহর : কাসাব্লাংকা।

জাতি-গোষ্ঠী : আরব বারবার (৯৯%), অন্যান্য (১%)।

ধর্ম : সুন্নি ইসলাম।

সরকার পদ্ধতি : ইউনিটারি পার্লামেন্টারি কনস্টিটিউশনাল মনার্কি।

বাদশাহ : ষষ্ঠ মোহাম্মদ।

আইনসভা : পার্লামেন্ট।

স্বাধীনতা : ৭ এপ্রিল, ১৯৫৬।

আয়তন : সাত লাখ ১০ হাজার ৮৫০ বর্গকিমি।

জনসংখ্যা : তিন কোটি ৩৮ লাখ ৪৮ হাজার ২৪২।

ঘনত্ব : প্রতি বর্গকিলোমিটারে ৭৩.১ জন।

জিডিপি : মোট ২৭৪.৫৩ বিলিয়ন ডলার, মাথাপিছু আট হাজার ১৯৪ ডলার।

মুদ্রা : মরোক্কান দিরহাম।

জাতিসংঘে যোগদান : ১১ নভেম্বর, ১৯৫৬।

মন্তব্য