kalerkantho

রবিবার। ১৬ জুন ২০১৯। ২ আষাঢ় ১৪২৬। ১২ শাওয়াল ১৪৪০

আপনার শিশু

ডায়াপার পরানোর আগে-পরে

শিশুদের ত্বক সংবেদনশীল হয়। তাই ডায়াপার পরানোর আগে-পরে বিশেষ যত্ন নিতে হবে। শিশুদের ডায়াপার পরানোর আগে-পরের যত্নআত্তি সম্পর্কে জানিয়েছেন হলিফ্যামিলি রেড ক্রিসেন্ট মেডিক্যাল কলেজের সহযোগী অধ্যাপক ডা. সজল আশফাক। লিখেছেন এ এস এম সাদ

১০ জুন, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ডায়াপার পরানোর

আগে-পরে

মডেল : নির্ভয় ছবি : কাকলী প্রধান

নিয়মিত ডায়াপার পরানোর কারণে শিশুর ত্বক লাল হয়ে ফুলে উঠতে বা ফুসকুড়ি হতে পারে। যাকে বলা হয় ডায়াপার

র‍্যাশ। এই সমস্যা থেকে রেহাই পেতে ডায়াপার পরানোর আগে-পরে বিশেষ সতর্কতা অবলম্বন করা উচিত।

 

আগে

ডায়াপার পরানোর আগে ত্বক ভালো করে পরিষ্কার করে নিন। ত্বক যেন ভেজা না থাকে সেদিকে লক্ষ রাখতে হবে। এরপর ত্বকের যে অংশে ডায়াপার ঢাকা পড়বে সেখানে পেট্রোলিয়াম জেলি বা বেবি অয়েল ব্যবহার করতে পারেন। তাহলে ডায়াপারের ঘষা থেকে শিশুর ত্বক সুরক্ষা পাবে। তবে পরিমাণে খুব বেশি ব্যবহার করাও ঠিক নয়, তাতে আবার শিশুর গরম লাগতে পারে। পেট্রোলিয়াম জেলি বা তেল লাগানোর কিছুক্ষণ পর ডায়াপার পরান। ত্বকে র্যাশ হয়ে গেলে আবার পেট্রোলিয়াম জেলি কিংবা তেল ব্যবহার করা যাবে না। এতে র্যাশ আরো বেড়ে যেতে পারে। এ ক্ষেত্রে র‍্যাশ ক্রিম লাগাতে হবে ডায়াপার পরানোর আগে। অনেকে ডায়াপার পরানোর আগে শিশুর ত্বকে পাউডার ব্যবহার করেন। এটি ঠিক নয়। এতে শিশুর ত্বক আরো শুষ্ক হয়ে যায়।  

পরে

ডায়াপার পরানোর পর বেশ কিছুক্ষণ শিশুর দিকে বাড়তি খেয়াল রাখুন। ডায়াপার শিশুর জন্য অস্বস্তিকর বা আঁটসাঁট হয়ে গেল কি না খেয়াল করুন। রাতে ডায়াপার পরালে সকালে উঠেই বদলে দিতে হবে। ছোট শিশুদের ক্ষেত্রে যারা ঘুমের মধ্যে কয়েকবার দুধ খায় তাদের রাতে একবার ডায়াপার বদলে দেওয়া ভালো।র‍্যাশ উঠলে ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে ডায়াপার ব্র্যান্ড পরিবর্তন করে ওষুধ ব্যবহার করতে হবে। সব শিশুর ত্বক এক রকম নয়। কারো ত্বক বেশি স্পর্শকাতর হয়। তাই ডায়াপার পরানোর পর একটু খেয়াল রাখুন শিশুর ত্বকে কোনো রকম পরিবর্তন হয়েছে কি না। ফোলাভাব বা লাল দাগ দেখা গেলে এবং সেখানে স্পর্শ করলে শিশু ব্যথায় কেঁদে উঠলে বুঝতে হবে ডায়াপার র‍্যাশ হয়েছে। র‍্যাশ হলে তিন থেকে চার ঘণ্টার মধ্যে ডায়াপার বদলে দিন। দুটি ডায়াপার পরানোর মাঝে আধা ঘণ্টা বিরতি দিন। এ সময় র‍্যাশ ক্রিম লাগিয়ে আক্রান্ত ত্বক খোলা রাখুন।

এভাবে যত্ন নিলে কয়েক দিনের মধ্যেই ত্বকের র‍্যাশ দূর হয়ে যাবে। তবে যদি আক্রান্ত স্থানে সংক্রমণ, ক্ষত বা পুঁজ দেখা যায় এবং দেহে জ্বর থাকে, তবে দ্রুত চিকিত্সকের কাছে যেতে হবে।

মন্তব্য