kalerkantho

শনিবার । ১৫ মাঘ ১৪২৮। ২৯ জানুয়ারি ২০২২। ২৫ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

খাওয়া নিয়ে সাবধান

কড়া নাড়ছে ফাইনাল। কারো বা শুরুও হয়ে গেছে। এ সময় পড়ার পাশাপাশি বিশেষ যত্ন নিতে হয় শরীরেরও। খেয়াল রাখতে হবে খাবারে। পরামর্শ দিয়েছেন নরওয়ের নরওয়েজিয়ান ইউনিভার্সিটি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির গবেষক পুষ্টিবিদ আশিক মাহমুদ

১৬ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



খাওয়া নিয়ে সাবধান

শেষ ভালো যার সব ভালো তার। তাই পড়াশোনা করার সময় ঠিক রাখা চাই শরীরটাও। নাওয়া-খাওয়া ভুলে পড়তে শুরু করে দিলে হিতে বিপরীতই হবে।

পরীক্ষার আগে অনেকে সকালের খাবার দুপুরে কিংবা দুপুরের খাবার রাতে খায়।

বিজ্ঞাপন

চূড়ান্ত পরীক্ষায় একজনের সাফল্য শুধু পড়াশোনার ওপর নির্ভর করে না; বরং পরীক্ষার দিনে শারীরিক অবস্থার ওপরও অনেক নির্ভরশীল।

আমরা প্রায়ই পরীক্ষার সময় নিয়মিত খাবারের সময়সূচি বজায় রাখতে ভুলে যাই। সে ক্ষেত্রে পড়ার টেবিলে কলা, কিছু কুকিজ ও দুধের বোতল রাখা যেতে পারে। যখনই ক্ষুধার্ত বোধ করবে এসব খাবে। পরীক্ষার হলে যাওয়ার সময় এক বোতল বিশুদ্ধ পানি ও সঙ্গে একটি আপেল বা কলা নিতে পারো। এগুলো তোমার শরীরকে চাঙ্গা রাখবে এবং পরীক্ষার খাতায় ফোকাস বাড়াতে সাহায্য করবে।

এ সময় ভুলেও বাইরের খোলা খাবার খাবে না। বিশেষত তৈলাক্ত স্ট্রিট ফুড একেবারেই নয়; এমনকি দূরে থাকা চাই বার্গার বা অন্যান্য জাংকফুড থেকেও। কুকিজ খেতে পারো। মৌসুমি ফল তো আছেই। ব্যাগে দু-একটা ফল রাখবে সব সময়। দ্রুত পেট ভরাতে ফলের জুড়ি নেই।

            অনুলিখন : জুবায়ের আহম্মেদ