kalerkantho

ইউরোপিয়ান ফুটবল

চেলসিকে হারিয়ে শীর্ষেই লিভারপুল

১৬ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



চেলসিকে হারিয়ে শীর্ষেই লিভারপুল

প্রিমিয়ার লিগে শিরোপার ইঁদুরদৌড় চলছেই। গত পরশু ক্রিস্টাল প্যালেসকে ৩-১ গোলে হারিয়ে শীর্ষে ফিরেছিল ম্যানচেস্টার সিটি। কয়েক ঘণ্টা পর চেলসিকে ২-০ গোলে হারিয়ে আবারও সিংহাসন দখল লিভারপুলের। ৩৪ ম্যাচ শেষে লিভারপুলের পয়েন্ট ৮৫, এক ম্যাচ কম খেলা সিটির ৮৩। সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে লিভারপুলের হয়ে ইয়ুর্গেন ক্লপের এটা ছিল ২০০তম ম্যাচ। দুর্দান্ত জয়ে যা উদ্‌যাপন করল তাঁর শিষ্যরা।

ইতালিয়ান সিরি ‘এ’তে নাপোলি হারলে শিরোপা উৎসব করতে পারত জুভেন্টাস। কিন্তু শিয়েভোর বিপক্ষে ৩-১ গোলের জয়ে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোদের অপেক্ষা বাড়িয়েছে তারা। ফ্রেঞ্চ লিগ ওয়ানে শিরোপার জন্য ১ পয়েন্ট দরকার ছিল পিএসজির। লিলের সঙ্গে উল্টো ৫-১ গোলে বিধ্বস্ত টমাস টাসেলের দল! তাই অপেক্ষা বেড়েছে কিলিয়ান এমবাপ্পেদের। জার্মান বুন্দেসলিগায় বায়ার্ন মিউনিখ ৪-১ গোলে হারিয়েছে ডুসেলডর্ফকে। এই জয়ে তারা ফিরে পেয়েছে হারানো শীর্ষস্থান। স্প্যানিশ লা লিগায় গত শনিবার হুয়েস্কার সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করেছিল বার্সেলোনা। একই রাতে সেল্তা ভিগোকে ২-০ গোলে হারিয়ে বার্সার সঙ্গে পয়েন্টের ব্যবধান ৯-এ কমিয়ে এনেছে অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদ।

ক্রিস্টাল প্যালেসের সঙ্গে জয়টা প্রত্যাশিত ছিল ম্যানচেস্টার সিটির। পেপ গার্দিওলার দল ম্যাচটাও সহজে জেতে ৩-১ গোলে। ১৫ ও ৬৩ মিনিটে জোড়া গোল ছন্দে থাকা রহিম স্টার্লিংয়ের। ৯০ মিনিটে অন্য গোলটি গ্যাব্রিয়েল জেসুসের। কিছুক্ষণ পর শুরু হওয়া চেলসির বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে লিভারপুল হোঁচট খেলে শীর্ষে থাকত সিটি। মো সালাহ, সাদিও মানেদের নৈপুণ্যে হয়নি সেটা। ৫১ মিনিটে জর্ডান হেন্ডারসনের ক্রসে মাথা ছুঁইয়ে অলরেডদের এগিয়ে দেন সাদিও মানে। এবারের লিগে এটা তাঁর ১৮তম গোল।

৫৩ মিনিটে অসাধারণ গোলে লিভারপুলকে ২-০ ব্যবধানের জয় এনে দেন মোহামেদ সালাহ। ২৫ গজ দূর থেকে বাঁ-পায়ের আগুনে শটে জাল খুঁজে নেন এই মিসরীয়। এবারের লিগে সের্হিয়ো আগুয়েরোর সমান সর্বোচ্চ ১৯ গোল এখন তাঁর। ২০১২ সালের পর অ্যানফিল্ডে লিগে চেলসির বিপক্ষে প্রথম জয়ের দেখা পায় অলরেডরা। ম্যাচটি ছিল লিভারপুলের হয়ে ইয়ুর্গেন ক্লপের ২০০তম। তাতে জয় ১১২, ড্র ৫২ আর হার ৩৬টি। দলকে শীর্ষে রাখতে পারায় দারুণ খুশি তিনি, ‘এই দলকে নিয়ে আমি গর্বিত। এখন আমরা সবার জন্য প্রস্তুত। শিরোপা জিততে পারলে দারুণ হবে। না জিতলেও বলব এই দলটা দুর্দান্ত।’

ফ্রেঞ্চ লিগ ওয়ানে শিরোপার জন্য ১ পয়েন্টের অপেক্ষায় থাকা পিএসজি লিলের কাছে বিধ্বস্ত ৫-১ গোলে। ৩৬ মিনিটে হুয়ান বার্নাত লাল কার্ড দেখলে ১০ জনের দলে পরিণত হয় তারা। এই ধাক্কাটা সামলাতে না পেরে ২০১১ সালে কাতার স্পোর্টস ইনভেস্টমেন্ট দল কেনার পর পিএসজি লিগে হারল সবচেয়ে বড় ব্যবধানে। এর পরও ৩১ ম্যাচ শেষে তাদের পয়েন্ট ৮১। এক ম্যাচ বেশি খেলা লিলে দুইয়ে আছে ৬৪ পয়েন্ট নিয়ে। ইএসপিএন

মন্তব্য