kalerkantho


কলিনড্রেস-ভিনিসিয়াস মাতালেন

২৩ অক্টোবর, ২০১৮ ০০:০০



কলিনড্রেস-ভিনিসিয়াস মাতালেন

এই দুজনের দুরন্ত ফুটবলে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় শেখ রাসেলের মাঠে গতকাল রহমতগঞ্জকে ২-১ গোলে হারিয়েছে বসুন্ধরা কিংস।

 

ক্রীড়া প্রতিবেদক : বিশ্বকাপ খেলা হাতে গোনা কজনই খেলেছেন বাংলাদেশ ফুটবলে। সে তালিকায় এবার যোগ হয়েছেন কোস্টারিকান ডেনিয়েল কলিনড্রেস। রিয়াল মাদ্রিদ তারকা কেইলর নাভাসের এই সতীর্থ প্রাণ হয়ে এসেছেন বসুন্ধরা কিংসের।  দ্রুত জায়গা বদলে খেলা তৈরি, ফাইনাল পাস বাড়ানো আর গোল করায় এক কথায় অনবদ্য। তাঁর সঙ্গে একই ক্লাবে যোগ দিয়েছেন ব্রাজিলিয়ান স্ট্রাইকার মার্কোস ভিনিসিয়াস। জুটি গড়ে দুজনই মাতালেন রহমতগঞ্জের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচটি। এই দুজনের দুরন্ত ফুটবলে বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় শেখ রাসেলের মাঠে গতকাল রহমতগঞ্জকে ২-১ গোলে হারিয়েছে বসুন্ধরা কিংস।

স্কোরলাইন অবশ্য ম্যাচের পুরো চিত্র বলছে না। প্রিমিয়ার লিগে প্রথমবার অংশ নিতে যাওয়া বসুন্ধরা কিংস ২-০ গোলে এগিয়ে ছিল ৮৫ মিনিট পর্যন্ত। রহমতগঞ্জের গোলরক্ষক অসাধারণ কটি সেভ না করলে এগিয়ে যেতে পারত ৪-০ গোলেও। ম্যাচের শেষ দিকে একটি গোল ফেরান সাব্বির। বসুন্ধরা কিংসের সাধারণ সম্পাদক মিনহাজুল ইসলাম মিনহাজ ভীষণ খুশি দলের পারফরম্যান্সে, ‘ফেডারেশন কাপের আগে এটাই আমাদের শেষ প্রস্তুতি ম্যাচ। এর আগে যে তিনটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছি, প্রতিটিতে দাপট ছিল আমাদের। এখন আসল মঞ্চে মেলে ধরতে হবে নিজেদের।’

গতকাল শুরু থেকে আক্রমণাত্মক ছিল পেশাদার ফুটবলে নতুন নাম লেখানো বসুন্ধরা কিংস। তারা প্রথম গোল পায় ২০ মিনিটে। এশিয়ান কোটায় যোগ দেওয়া কিরগিজস্তানের বখতিয়ারের মাঝমাঠ থেকে বাড়ানো পাসে সঙ্গে লেগে থাকা ডিফেন্ডারকে বোকা বানিয়ে লক্ষ্যভেদ অধিনায়ক কলিনড্রেসের। এরপর কলিনড্রেস-ভিনিসিয়াসের বল আদান-প্রদানে দারুণ এক ছন্দ তৈরি হয়েছিল মাঠে। দুর্ভাগ্য বসুন্ধরা কিংসের, শুধু দ্বিতীয় গোলটাই পাচ্ছিল না তারা। বিরতির পর মেটে সেই আক্ষেপ। কলিনড্রেসের পাসেই জোরালো শটে গোল করেন ব্রাজিলিয়ান ভিনিসিয়াস। তাঁর পায়ে যেমন শিল্পের ছোঁয়া আছে, তেমনি খেলতে পারেন শক্তি দিয়েও। আফ্রিকান ফুটবলারে ভরা ঢাকার শরীরনির্ভর ফুটবলে কাজে আসবে এটা।

ম্যাচ শেষের কিছুক্ষণ আগে কিংসের রক্ষণের ভুলে বল পেয়ে এক গোল ফেরান রহমতগঞ্জের সাব্বির। রহমতগঞ্জের ভাইস প্রেসিডেন্ট জামালউদ্দিন ম্যাচ শেষে সন্তুষ্ট দলের পারফরম্যান্সে, ‘আমরা ছোট বাজেটের ক্লাব। বসুন্ধরা কিংসের মতো দলের বিপক্ষে ২-১ গোলের হারটা ভালো ফল।’ গতবার বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়নস লিগে প্রথমবার অংশ নিয়েই চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস। তাতে পায় প্রিমিয়ার লিগের ছাড়পত্র। খেলবে ফেডারেশন কাপেও। টুর্নামেন্ট দুটিতে তারা অংশ নেবে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার লক্ষ্যে। এরই অংশ হিসেবে  মালদ্বীপের চ্যাম্পিয়ন নিউ রেডিয়েন্টকে ৪-১ গোলে উড়িয়ে দিয়েছিল প্রস্তুতি ম্যাচে। দ্বিতীয় প্রস্তুতি ম্যাচে ১-০ গোলের জয় শেখ রাসেলের বিপক্ষে। গতকাল রহমতগঞ্জের বিপক্ষে দাপুটে ফুটবলে তারা জানিয়ে রাখল, শিরোপার দাবিদার হয়েই নামবে আসল মঞ্চে।



মন্তব্য