kalerkantho


ইংল্যান্ড-পাকিস্তান টেস্ট আজ থেকে

২৪ মে, ২০১৮ ০০:০০



ইংল্যান্ড-পাকিস্তান টেস্ট আজ থেকে

টেস্টে সাম্প্রতিক সময়টা তাদের মোটেও সুখকর নয়। অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ড সফর কেটেছে জয়হীন। দেশের বাইরে একে একে ১৩ ম্যাচ চলে গেছে, কিন্তু জয়ের মুখ দেখা হয়নি ইংল্যান্ডের। তবে আজ থেকে লর্ডসে পাকিস্তানের বিপক্ষে শুরু হতে যাওয়া দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্ট থেকে ঘরের স্বাচ্ছন্দ্যই উপভোগ করার আশা ইংলিশদের। যদিও গত সপ্তাহে আয়ারল্যান্ডের অভিষেক টেস্টে আইরিশদের হারিয়ে পাওয়া অনুপ্রেরণাদায়ী জয়ে পাকিস্তানও আত্মবিশ্বাসে টগবগ করে ফুটছে। ‘ভয়ডরহীন’ ক্রিকেট খেলে তারাও স্বাগতিকদের ঘুম কেড়ে নিতে চায় বলে জানিয়ে দিয়েছেন পাকিস্তানের কোচ মিকি আর্থার।

শিষ্যদের ওপর তিনি এমন আস্থাশীল যে কাল লর্ডসে দক্ষিণ আফ্রিকা এবং অস্ট্রেলিয়ার এই সাবেক কোচ বলে দিয়েছেন, ‘আমরা নিশ্চয়ই না জেতার চিন্তা করে এখানে আসিনি। আমাদের ড্রেসিংরুম দক্ষ ক্রিকেটারে ভরপুর। দলে এমন কিছু তরুণ ক্রিকেটার আছে, যারা ভয়ডরহীন ক্রিকেট খেলে। ওরা যদি ছন্দটা পেয়ে যায় এবং জিনিসগুলো আমাদের পক্ষে যায়, তাহলে ওরা অবশ্যই ইংল্যান্ডকে চাপে ফেলবে।’ তাই বলে নিজেদের মাঠে ইংলিশদের অন্য রূপে দেখা দেওয়ার সম্ভাবনার কথাও মাথায় রেখেছেন আর্থার, ‘বিদেশের ইংল্যান্ডের তুলনায় ঘরের মাঠের ইংল্যান্ড একেবারেই আলাদা একটি দল।’ যে দলে জস বাটলার আক্রমণাত্মক মানসিকতা যোগ করবেন বলেও বিশ্বাস পাকিস্তানের কোচের, ‘অবশ্যই বাটলারের ওপর নজর থাকবে আমাদের। কারণ ওর অন্তর্ভুক্তিতে ইংল্যান্ড দলে আক্রমণাত্মক মানসিকতার ব্যাপারটি যোগ হচ্ছে।’ মূলত সীমিত ওভারের ক্রিকেটে নিজের অপরিহার্যতা প্রমাণ করা বাটলার হলেন নতুন প্রধান নির্বাচক এড স্মিথের প্রথম দল ঘোষণার অন্যতম চমক। তাঁর অন্তর্ভুক্তিতে ইংল্যান্ড দলের ব্যাটিং অর্ডারে পরিবর্তনও অবশ্যম্ভাবী হয়ে উঠেছে। প্রসঙ্গত দুই বছর আগে ইংল্যান্ডে দুই দলের চার টেস্টের সিরিজ ২-২ এ ড্র হয়েছিল। তখন দলের ব্যাটিং ভরসা মিসবাহ-উল হক এবং ইউনিস খানরা অবসরে যাওয়ায় এখন আজহার আলী ও আসাদ শফিকদের কাঁধে সেই শূন্যতা পূরণের দায়িত্ব। সেটি তাঁরা কতটা করতে পারবেন, এবারের ইংল্যান্ড সফরে হয়ে যাবে সে পরীক্ষাও। এএফপি


মন্তব্য