kalerkantho


নতুন গোলা পেয়ে গেছে গানাররা

১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



নতুন গোলা পেয়ে গেছে গানাররা

আন্তর্জাতিক ফ্লাইট ট্র্যাক করে এমন একটি টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে পরশুর টুইট, ‘ডর্টমুন্ড থেকে এইমাত্র একটি প্রাইভেট জেট লন্ডনের পথে উড়ল। বলুন তো কে আছেন এই বিমানে?’ কিছু সময়ের মধ্যেই ৩২ হাজার অ্যাকাউন্ট অনুসরণ করতে থাকে সেই ফ্লাইটিকে। না বললেও চলেছে ওই ৩২ হাজার সবাই আর্সেনাল সমর্থক, আর ওই বিমানে পিয়েরে এমরিক অবামেয়াংকেই কল্পনা করে নিচ্ছিলেন তাঁরা। মিথ্যা নয়। জার্মান ফুটবল মাতিয়ে গ্যাবনিজ স্ট্রাইকার কাল সকালেই ডাক্তারি পরীক্ষা সেরেছেন আর্সেনালে। ক্লাব রেকর্ড ৬৩ মিলিয়ন ইউরোতে তাঁকে কিনে নিয়েছে প্রিমিয়ার লিগের দলটি।

মঙ্গলবার রাতেই সোয়ানসির মাঠে ৩-১ গোলে হারের লজ্জা পেয়েছে আর্সেনাল। সেই রাতেই কিনা আর্সেন ওয়েঙ্গারের ভিডিও বার্তা অবামেয়াংকে নিয়ে! ‘এটা খুবই ভালো খবর। অবামেয়াং আমাদের আক্রমণভাগে নতুন শক্তি হয়ে উঠবে। ওর ক্যারিয়ার, ওর রেকর্ডই সেই কথা বলে।’ হারের শোক মুহূর্তেই ভুলিয়ে দেন অবা এমনি এমনিই নয়। গত মৌসুমেই ইউরোপিয়ান গোল্ডেন বুটের জন্য লড়েছেন তিনি লিওনেল মেসির সঙ্গে। তৃতীয় হয়েছেন শেষ পর্যন্ত। তবে ৩১ গোলে বুন্দেসলিগার ইতিহাসে বিদেশি সব খেলোয়াড়ের রেকর্ড তিনি ভেঙে দিয়েছেন। ডর্টমুনন্ডে পাঁচ বছরের ক্যারিয়ারে করেছেন ১৪১ গোল, শুধু লিগের ১৪৪ ম্যাচে ৯৮ গোল। যার ৯৭টিই ‘ইনসাইড দ্য বক্স’। এমনিতেই তো তাঁকে বলা হয় না ‘ফক্স অব দ্য বক্স।’

আলেক্সিস সানচেজ ক্লাব ছাড়ার পর এমন এক গোলারই প্রয়োজন ছিল গানারদের। যাঁর জন্য দীর্ঘদিন সার্ভিস দেওয়া অলিভিয়ের জিরোদকে মাত্র ১৮ মিলিয়ন ইউরোতে তারা ছেড়ে দিয়েছে চেলসির কাছে। না দিয়ে উপায় ছিল না। অবা-র রিপ্লেসমেন্ট চাইছিল ডর্টমুন্ড। জিরোদে তাদের আপত্তি ছিল না। কিন্তু চেলসি আগ্রহী হওয়ায় ফরাসি স্ট্রাইকার থেকে যেতে চেয়েছেন প্রিমিয়ার লিগেই। ব্লু’রা মিচি বাতুশুয়াইয়িরকে তাঁর বদলে ধারে পাঠাচ্ছে ডর্টমুন্ডে। অবামেয়াংয়ের সঙ্গে সাড়ে তিন বছরের চুক্তি করার দিনে মেসুত ওয়েজিলের সঙ্গেও একই নতুন চুক্তিতে গিয়েছেন ওয়েঙ্গার। সানচেজ, ওয়েজিল দুজনেরই ক্লাব ছাড়ার গুঞ্জন প্রায় বছরখানেক ধরে। চিলিয়ান ফরোয়ার্ড শেষ পর্যন্ত ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দিলেও ওয়েজিলকে ধরে রাখলেন গানার বস। ক্লাবে সর্বোচ্চ সাড়ে তিন লাখ পাউন্ড বেতনও পাবেন জার্মান তারকা। এএফপি


মন্তব্য