kalerkantho


আবার লিনগার্ড

জয়ে বছর শুরু ম্যানইউ লিভারপুলের

৩ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



জয়ে বছর শুরু ম্যানইউ লিভারপুলের

টানা তিন ড্র দিয়ে ২০১৭ সালটা শেষ করেছিল ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। নতুন বছরের শুরুটা এভারটনের মাঠে, যে দলে লম্বা সময় ম্যানইউতে খেলার পর ফিরে গেছেন ওয়েইন রুনি। তাই শুরুতেই আরেকটি অঘটনের শঙ্কা ছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ভালোয় ভালোয়ই বছরটা শুরু করেছে রেড ডেভিলরা। অ্যান্থনি মার্সিয়াল আর জেস লিনগার্ডের গোলে এভারটনকে তারা হারিয়েছে ২-০ গোলে। আরেক ম্যাচে র‌্যাগনার ক্লাভানের শেষ মুহূর্তের গোল বার্নলির বিপক্ষে ৩ পয়েন্ট এনে দিয়েছে লিভারপুলকে। জয়খরা ঘুচিয়েছে লিস্টার সিটিও, চার ম্যাচ পর জয়ের মুখ দেখে জয় দিয়েই নতুন বছরটা শুরু হয়েছে জেমি ভার্ডিদের।

বড়দিন ও নববর্ষ মিলিয়ে ম্যানইউকে ২১৫ ঘণ্টার ভেতর চারটি ম্যাচ খেলতে হয়েছে। যেখানে ম্যানচেস্টার সিটি এই উৎসবের মৌসুমে প্রথম ও শেষ ম্যাচের মাঝে পেয়েছে ২৪৭ ঘণ্টা আর চেলসির জন্য এ সময়টা ছিল ২৭০ ঘণ্টারও বেশি। এই ঠাসবুনোট সূচি, অ্যাশলে ইয়াংয়ের তিন ম্যাচের নিষেধাজ্ঞা ও দলের চোট সমস্যা, সব মিলিয়েই একাদশ সাজাতে ও পরিকল্পনা করতে হিমশিম খেয়েছেন মরিনহো। তাই তো এই সময়ের চার ম্যাচ থেকে মাত্র ৬ পয়েন্ট ঘরে তুলতে পেরেছেন তাঁরা। সব শেষ ম্যাচটি এভারটনের বিপক্ষে জিতেই তাঁরা পেয়েছেন পূর্ণ পয়েন্ট, এর আগের তিন ম্যাচই ছিল ড্র। প্রথমার্ধটা দূরপাল্লার শটেই লক্ষ্যভেদের প্রচেষ্টায় ব্যস্ত ছিল রেড ডেভিলরা, তবে সেই কৌশল সফল হয়নি। দ্বিতীয়ার্ধে, ৫৭ মিনিটে অ্যান্থনি মার্সিয়ালের দারুণ গোলের পর ৮১ মিনিটে লিনগার্ডের গোলে লিড বাড়িয়ে ম্যাচ জেতে ম্যানইউ।

এই মৌসুমে লিভারপুল যতগুলো ম্যাচ জিতেছে ন্যূনতম ব্যবধানে, তার চেয়ে বেশি জিতেছে বড় ব্যবধানে। তবে বার্নলির সঙ্গে দুটি ম্যাচই তারা জিতল ন্যূনতম ব্যবধানে। নিজের মাঠেও আগে গোল খেয়ে পরে ২ গোল দিয়ে জিতেছিল অলরেডরা। এবার বার্নলির মাঠেও শেষ সময়ের গোলে রক্ষা। গোলশূন্য প্রথমার্ধের পর ৬১ মিনিটে সাদিও মানের গোলে লিভারপুলের এগিয়ে যাওয়া, এরপর ৮৭ মিনিটে গুডমুন্ডসনের গোল পরিশোধ। পয়েন্ট ভাগই যখন অবধারিত মনে হচ্ছে, তখন ইনজুরি টাইমের চতুর্থ মিনিটে র‌্যাগনার ক্লাভানের গোল নিশ্চিত করেছে লিভারপুলের জয়। এস্তোনিয়ার সেন্টারব্যাক ক্লাভান প্রিমিয়ার লিগে গোল করা এস্তোনিয়ার প্রথম ফুটবলার। এর মাধ্যমে প্রিমিয়ার লিগে গোলদাতার মানচিত্র আরকেটু বাড়ল। এখন পর্যন্ত ৯৭টি দেশের ফুটবলার গোল করেছেন এই লিগে। মাহরেজ, স্লিমানি ও অলব্রাইটনের গোলে লিস্টার ৩-০ গোলে হারিয়েছে হাডার্সফিল্ড টাউনকে। ইএসপিএনএফসি


মন্তব্য