kalerkantho


মুখোমুখি প্রতিদিন

লড়াকু মানসিকতাই আমাদের জিতিয়েছে

১৯ অক্টোবর, ২০১৭ ০০:০০



লড়াকু মানসিকতাই আমাদের জিতিয়েছে

গ্রুপ পর্ব থেকেই মালয়েশিয়া নিজেদের শক্তিমত্তার জানান দিয়েছে। কাল সুপার ফোরের প্রথম ম্যাচে পাকিস্তানকে হারিয়ে জানিয়েছে তারাও শিরোপার দাবিদার।

কাল ম্যাচ শেষে দলের কোচ স্টিফেন ফন হিউজেন সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেছেন নিজের দলের এই পারফরম্যান্স নিয়েই

 

কালের কণ্ঠ স্পোর্টস : পাকিস্তানের মতো শক্তিশালী দলকে হারিয়েছেন, এই ম্যাচে ওদের দুর্বলতা কী ছিল আর মালয়েশিয়া এগিয়ে গেছে কোন জায়গায়?

স্টিফেন ফন হিউজেন : পাকিস্তান শুরুটা কিন্তু খুব ভালো করেছিল। ৩০ সেকেন্ডেই ওরা গোল পেয়ে যায়। তাতে আমাদের জন্য ম্যাচটি কঠিন হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু খেলোয়াড়দের লড়াকু মানসিকতাই শেষ পর্যন্ত আমাদের জিতিয়ে দিয়েছে।

প্রশ্ন : এই জয়ে ফাইনালের আরো কাছে চলে গেলেন আপনারা?

স্টিফেন : এখনই ফাইনাল নিয়ে কিছু বলা ঠিক হবে না। ভারত টুর্নামেন্টের ফেভারিট, এরপর কোরিয়ার বিপক্ষেও খেলতে হবে আমাদের। ৩ পয়েন্টই তাই ফাইনালের জন্য যথেষ্ট নয়। আমাদের আরো দুটি কঠিন ম্যাচ সামনে। এরপরেই আসলে ফাইনাল নিয়ে বলা যাবে।

তবে এই মুহূর্তে এই ৩ পয়েন্ট নিয়ে আমি ভীষণ খুশি।

প্রশ্ন : আজ এক গোলের ব্যবধান, সমশক্তির দলগুলোর মধ্যে শেষে নিশ্চয় গোল ব্যবধানটা গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠবে?

স্টিফেন : হ্যাঁ, এটা আমরাও জানি। খেলোয়াড়দের এটা আমি বলেছিও যে সুপার ফোরে শুধু জয়টাই যথেষ্ট নয়, এখন আমাদের বেশি গোলও করতে হবে। এই তিনটি ম্যাচে জয়ের মতো প্রতিটি গোলই আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ, গোল হজম করলে সেটার মাসুল দিতে হবে।

প্রশ্ন : পেনাল্টি স্ট্রোকের গোলে আজ জিতলেন, গোলরক্ষকের ওই ‘ফাউল’টা নিয়ে কী বলবেন, প্রতিপক্ষ তো বেশ আপত্তি করছিল?

স্টিফেন : ওরা আপত্তি করেছিল এবং রিভিউও নিয়েছিল। তাতে ওরা হেরেছে। সাইডলাইন থেকে আমার জন্য ফাউল নিয়ে মন্তব্য করা কঠিন। কিন্তু রিভিউতেই নিশ্চয় পরিষ্কার হয়ে গেছে যে ওটা ফাউল ছিল। এ ধরনের পরিস্থিতিতে গোলরক্ষককেই আসলে বেশি সতর্ক থাকতে হয়।

প্রশ্ন : পরের ম্যাচ ভারতের বিপক্ষে, কতটা আশাবাদী?

স্টিফেন : খুব কঠিন হবে। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আমাদের ভারতের মতো দলের বিপক্ষে খেলতে হবে, এটা সত্যি কঠিন। তারা র‍্যাংকিংয়ের ৬ নম্বরে আছে, এই টুর্নামেন্টেও তারা খুব ভালো হকি খেলছে। কোনো ম্যাচ হারেনি। আমরাও চেষ্টা করব জয়ের ধারাটা ধরে রাখতে। ভারতের বিপক্ষে প্রত্যাশিত ফল না পেলেও অবশ্য কোরিয়ার বিপক্ষে পরের ম্যাচে আমাদের আরেকটি সুযোগ থাকবে।

প্রশ্ন : এর আগেও আপনার অধীনে ভারতকে হারিয়েছে মালয়েশিয়া, তাতে আপনারাই কি কিছুটা এগিয়ে থাকবেন না?

স্টিফেন : আগের ফল দিয়ে আসলে কিছু হয় না। আর লন্ডনে শেষ মুহূর্তের গোলে ওরা হেরেছিল, ফলটা ওদের পক্ষেও যেতে পারত।


মন্তব্য