kalerkantho


বার্সেলোনার পথে দেম্বেলে

১৭ আগস্ট, ২০১৭ ০০:০০



বার্সেলোনার পথে দেম্বেলে

নেইমারকে প্যারিস সেন্ত জার্মেইর কাছে বিক্রি করায় বার্সেলোনার অ্যাকাউন্টে যে এখন টাকার পাহাড়, সেটা তো সবারই জানা। তাইতো দাম চাইতে ১০০ মিলিয়নের কমে কোনো কথাই হচ্ছে না! লিভারপুলের ফিলিপে কৌতিনিয়োর সঙ্গে দরে বনেছিল, খেলোয়াড়ও রাজি ছিল কিন্তু ক্লাব ছাড়েনি। বরুশিয়া ডর্টমুন্ডের উসমান দেম্বেলে নাকি বার্সেলোনার প্রতিনিধিদের সঙ্গে আলাপ করতে অনুশীলনে না গিয়ে উধাও হয়ে গিয়েছিলেন! স্পেনের ‘দিয়ারিও স্পোর্ত’ জানাচ্ছে, দেম্বেলের সঙ্গে কথাবার্তা নাকি পাকা হয়ে গেছে বার্সেলোনা কর্তৃপক্ষের, ক্লাবও রাজি। ট্রান্সফার ফির অঙ্কটা ঠিক হয়েছে ১০০ মিলিয়ন ইউরো, এখন বোনাস নিয়ে দর-কষাকষি চলছে।

বয়স মাত্র ২০, গত বছরই ফরাসি লিগের দল রেনেঁ থেকে পাঁচ বছরের চুক্তিতে যোগ দিয়েছিলেন ডর্টমুন্ডে। মেয়াদ ২০২১ সালের জুন পর্যন্ত, কিন্তু এখনই দেম্বেলেকে দেখা গেছে বাড়ি থেকে স্যুটকেসভর্তি কাপড়চোপড় এনে গাড়িতে ভরতে। তাতেই ধারণা করা হচ্ছে, জার্মানি ছাড়ছেন এই তরুণ প্রতিভাবান ফুটবলার। যখন ডর্টমুন্ডে এসেছিলেন, তখন তাঁর সম্পর্কে ক্লাবের ওয়েবসাইটে লেখা হয়েছে, ‘দুই পায়েই সমান সাবলীল, আক্রমণভাগের যেকোনো পজিশনে খেলতে সক্ষম, ড্রিবলিং ও নাটমেগে পারদর্শী। ’ নেইমারের বিকল্প হিসেবে এমন কাউকেই তো খুঁজছে বার্সেলোনা! তাই বোধ হয় বছর কুড়ির এই ফুটবলার, গত মৌসুমে তিন আসর মিলিয়ে যাঁর মাত্র ১০ গোল আর বুন্দেসলিগায় ১২টি অ্যাসিস্ট; তাঁকে নিতেই ১০০ মিলিয়নের বেশি খরচ হচ্ছে বার্সেলোনার। দলবদলের মূল অঙ্ক ১০০ মিলিয়ন পাউন্ডে দুই পক্ষই একমত বলে খবর, এখন দর-কষাকষি চলছে ‘অ্যাড অন’ বোনাসের। খেলোয়াড় নতুন ক্লাবে গিয়ে লিগ, চ্যাম্পিয়নস লিগ জিতলে এবং গোলসংখ্যা ম্যাচসংখ্যার ওপর বাড়তি টাকা দাবি করতে পারে পুরাতন ক্লাব, এই অঙ্কটাই ঠিক করতে চাইছে দুই দল।

ডর্টমুন্ডের চাওয়া ৩০ মিলিয়ন ইউরো।

রিয়াল মাদ্রিদ থেকে প্যারিস সেন্ত জার্মেইতে যাওয়া হেসে রদ্রিগেসকে ধারে এক মৌসুমের জন্য স্টোক সিটিতে পাঠাল পিএসজি। রিয়ালের ২০১৪ ও ২০১৬ চ্যাম্পিয়নস ট্রফি জয়ের স্কোয়াডে থাকা হেসেকে গত আগস্টে ২১ মিলিয়ন পাউন্ডে পাঁচ বছরের জন্য চুক্তিবদ্ধ করেছিল ফরাসি ক্লাবটি। কিন্তু ১৪ ম্যাচে মাত্র দুই গোল করার পর গত মৌসুমেই শীতকালীন দলবদলে তাঁকে পাঠানো হয়েছিল স্প্যানিশ ক্লাব লাস পালমাসে। আবারও তাঁকে ধারেই পাঠান হলো আরেক দেশে, এবারে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের দল স্টোক সিটিতে। হেসেকে পেয়ে নিজেদের ফরোয়ার্ড হোসেলুকে পাঁচ মিলিয়নে নিউক্যাসলের কাছে বেচে দিয়েছে স্টোক সিটি।

ফিন্যান্সিয়াল ফেয়ার প্লে’র খাঁড়ায় কাটা পড়তে না চাইলে ও নেইমারকে কেনার খরচ সামাল দিতে হলে বেশ কিছু ফুটবলারকে ‘অফলোড’ করতেই হতো পিএসজিকে। নেইমারকে কিনে, অনাপত্তিপত্র হাতে পেয়ে মাঠে খেলিয়ে সব চিন্তা দূর হওয়ার পরই বোধ হয় সেই কর্মকাণ্ডে হাত দিয়েছে তারা। হেসেকে ধারে পাঠাবার পাশাপাশি তারা বেচে দিয়েছে ডিফেন্ডার সের্গে অরিয়েকে। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডেরও চোখ ছিল এই ফরাসির দিকে, তবে তাঁকে পেয়েছে টটেনহাম হটস্পারস। এ জন্য খরচা করতে হয়েছে ২০ থেকে ২৫ মিলিয়ন ইউরো। বিবিসি, মেইল


মন্তব্য