kalerkantho


পেলেকেও ছাড়িয়ে যাবেন নেইমার

১৫ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



পেলেকেও ছাড়িয়ে যাবেন নেইমার

ব্রাজিলের মাটি কফির মতো ফুটবলারেরও উর্বর ভূমি। যুগে যুগে কত কিংবদন্তিরই না জন্ম হয়েছে ব্রাজিলে।

জিকো, সক্রেতিস থেকে রোনালদো, রোনালদিনহো হয়ে হালের নেইমার বহন করছেন আলোর মশালটা। এসব কিংবদন্তির মধ্যে সবার ওপরে পেলের জায়গা। কখনো ইউরোপে খেলেননি, ব্যালন ডি’অরও জেতেননি। তবু পেলে সবার ওপরে। শুধু তিনটি বিশ্বকাপ জেতার মর্যাদাতেই নয়, তাঁর গোলের রেকর্ডও যে এখনো অধরা। ৯১ ম্যাচে ৭১ গোল, গড়ে প্রায় ৩ ম্যাচে ২ গোল। তাঁর উত্তরসূরিরা জিতেছেন এমন অনেক কিছুই, যা জেতা হয়নি (বলা ভালো জেতার সুযোগ হয়নি) পেলের। কিন্তু দেশের হয়ে তাঁর সবচেয়ে বেশি গোলের রেকর্ডটা ভাঙতে পারেননি কেউই। সান্তোস, জুভেন্টাস, এসি মিলানে খেলা সাবেক ব্রাজিলিয়ান রাইটব্যাক কাফু মনে করেন, অক্ষত এই রেকর্ডটা ভাঙার সামর্থ্য আছে নেইমারের। একেবারেই অমূলক নয় সেটা। কারণ এরই মধ্যে ৫০টি আন্তর্জাতিক গোল করে বেবেতো, রোনালদিনহোদের ছাড়িয়ে গেছেন বছর পঁচিশেকের নেইমার। ৭৫ ম্যাচে ৫০ গোল অর্থাৎ গড়টা ০.৬৬; প্রতি ৫ ম্যাচে ৪ গোল। পেলে, কাফু ও নেইমার; তিনজনই জাতীয় দলে খেলেছেন—এই মিলটুকু বাদ দিলে আরো একটা মিল আছে তাঁদের মধ্যে। তিনজনই সান্তোসের জার্সি গায়ে চড়িয়েছেন। কাফু অবশ্য খেলেছেন যুব দলে, পেশাদারি পর্যায়ে শুরু সাও পাওলোতে। সবচেয়ে বেশিবার জাতীয় দলের হয়ে খেলা ও বিশ্বকাপে সবচেয়ে বেশি ম্যাচ খেলা কাফু মনে করেন, নেইমারই ভাঙবেন পেলের রেকর্ড, ‘সব রেকর্ড গড়াই হয় ভাঙার জন্য। আর অবশ্যই নেইমারের সেই যোগ্যতা আছে। সে তরুণ, তার সামনে অনেক সময় আছে। সে এখন যেমন খেলছে, তাতে করে সে যে পেলের রেকর্ডও ভেঙে ফেলবে, এর সব রকম সম্ভাবনাই তার মধ্যে আছে। ’ পেলের রেকর্ডটা না হয় একদিন ভাঙবেন নেইমার, কাফুর ১৪২ ম্যাচ খেলার রেকর্ডটাও কি ভাঙতে পারবেন? সেই প্রশ্ন না করে বরং জানতে চাওয়া হয়েছিল কাফুর দীর্ঘ ক্যারিয়ারের রহস্য। ৪৬ বছর বয়সী কাফুর উত্তর, ‘এটা শুধু মনের জোর, ফুটবলের প্রতি আমার একাগ্রতা আর দীর্ঘদিনের প্রচেষ্টার ফল। ’ গোল ডট কম


মন্তব্য