kalerkantho

আবার রামোস

১৪ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০



আবার রামোস

আনন্দের সপ্তম স্বর্গে উড়ছিল বার্সেলোনা। সেখান থেকে পরশু পপাত ধরণিতল! প্যারিস সেন্ত জার্মেইর বিপক্ষে মহাকাব্য লিখেছিল যে দলটি, তারাই কিনা দিনকয়েক পর দেপোর্তিভো লা করুনার বিপক্ষে গেল হেরে! তাতে স্প্যানিশ লা লিগার শিরোপা রেসে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদকেও দিল অনেকটা এগিয়ে।

কিভাবে? বার্সেলোনা হোঁচট খেলেও রিয়ালের পা কাটেনি পচা শামুকে। আরো একবার বরং তাদের ত্রাতা সের্হিয়ো রামোস। রিয়াল বেতিসের বিপক্ষে ম্যাচটি যখন ১-১ সমতায় শেষ হওয়ার পথে, তখন চেনা সেই চিত্রনাট্যের মঞ্চায়ন আবার। অধিনায়কের হেডে জয়সূচক গোল। তাতে লা লিগায় হারানো শীর্ষস্থান পুনরুদ্ধার করল রিয়াল। শুধু তা-ই নয়, বার্সার চেয়ে এক ম্যাচ কম খেলে এগিয়ে গেল ২ পয়েন্টে।

চ্যাম্পিয়নস লিগের উচ্ছ্বাসে ভেসে যাওয়ার মধ্যেই দেপোর্তিভোর বিপক্ষে ম্যাচ। বার্সা ক্যাম্পে খানিক শঙ্কা তাই ছিলই। প্রথমার্ধের শেষদিকে জোসেলুর গোলে দেপোর্তিভোর এগিয়ে যাওয়ায় তা বাড়ে আরো।

কিন্তু দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই লুইস সুয়ারেস গোল করলে শঙ্কার মেঘ কেটে স্বস্তির সুবাতাস বয়ে যায়। কিন্তু ৭৪তম মিনিটে আলেসান্দ্রো বেরগানতিনোসের গোলে রিয়াসোতে জয় পায় স্বাগতিকরা; গত মৌসুমে নিজেদের মাঠে যেখানে ০-৮ গোলে হেরেছিল তারা বার্সার কাছে। ইনজুরির কারণে চ্যাম্পিয়নস লিগে প্রত্যাবর্তনের মহানায়ক নেইমারের না থাকার চড়া মূল্যই এভাবে দিতে হয়েছে লুইস এনরিকের দলকে।

বার্সার পা পিছলানোর সুযোগটা পরে ভালোভাবেই নেয় রিয়াল মাদ্রিদ। পিছিয়ে পড়েও প্রথমার্ধের শেষ দিকে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর হেডে ম্যাচে ফেরায় সমতা। আর ম্যাচের শেষ দিকে, ৮১তম মিনিটে কর্নার থেকে উড়ে আসা বলে রামোসের হেডে দারুণ গোল। হাস্যকর ভুলে বেতিসকে গোল উপহার দেওয়া রিয়াল গোলরক্ষক কেইলর নাভাস পরে ইনজুরি সময়ের শেষ মিনিটে অবিশ্বাস্য এক সেভ করে নিশ্চিত করে রিয়ালের জয়।

এদিকে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে লিভারপুল ২-১ গোলে হারিয়েছে বার্নলিকে। তাতে ২৮ খেলায় ৫৫ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের চতুর্থতে রয়েছে ইয়ুর্গেন ক্লপের দল; আগামী মৌসুমে চ্যাম্পিয়নস লিগ খেলার সম্ভাবনা রইল টিকে। পরশু এফএ কাপের সেমিফাইনাল নিশ্চিত করেছে টটেনহাম। হেং-মিন সনের হ্যাটট্রিকে ৬-০ গোলে তারা হারিয়েছে মিলওয়ালকে।

বার্সেলোনা চ্যাম্পিয়নস লিগের ‘হ্যাংওভার’ কাটাতে না পারলে পিএসজি সে পথে এগিয়েছে এক ধাপ। পরশু ফ্রেঞ্চ লিগের ম্যাচে তারা ২-১ গোলে হারিয়েছে লরিয়েঁকে। আর ইতালিয়ান লিগে রোমা ৩-০ গোলে পালেরমো এবং নাপোলি একই ব্যবধানে হারায় ক্রোতোনেকে। এএফপি

 


মন্তব্য