kalerkantho


কোহলির ১০০ কোটি

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



কোহলির ১০০ কোটি

সময়টা এখন বিরাট কোহলির। প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে টানা চার টেস্ট সিরিজে ডাবল সেঞ্চুরি করে নিজেকে নিয়ে গেছেন অন্য উচ্চতায়। বিজ্ঞাপনের বাজারেও দাম চড়েছে হু হু করে। এতটাই যে নতুন ইতিহাস গড়তে যাচ্ছেন ভারতীয় অধিনায়ক। প্রথম ভারতীয় ক্রীড়াবিদ হিসেবে নির্দিষ্ট একটি ব্র্যান্ডের সঙ্গে করতে যাচ্ছেন ১০০ কোটি রুপির চুক্তি। জার্মান ক্রীড়াসামগ্রী প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান পিউমার সঙ্গে নতুন এই চুক্তি তাঁকে নিয়ে যাবে কিংবদন্তিদের কাতারেও। পেলে, ম্যারাডোনার মতো কিংবদন্তিরা যুক্ত ছিলেন পিউমার সঙ্গে। এখন এই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি আছে উসাইন বোল্ট, থিয়েরি অঁরি, অলিভিয়ের জিরদদের। সেই কাতারে নিজেকে দেখে গর্বিত কোহলি, ‘পিউমার সঙ্গে যুক্ত ছিলেন পেলে, ম্যারাডোনারা। এখন আছেন বোল্ট, অঁরি, জিরদরা। তাঁদের পাশে থাকতে পেরে গর্বিত আমি।

আট বছরের এই চুক্তিতে প্রতি বছর ১২ থেকে ১৪ কোটি রুপি পাবেন কোহলি। তাতে সব মিলিয়ে পেতে পারেন ১০০ কোটির বেশি। পণ্যদূত হিসেবে ১০০ কোটির ক্লাবে নাম লিখিয়েছেন শচীন টেন্ডুলকার, মহেন্দ্র সিং ধোনিও। তবে সেটা নির্দিষ্ট একটা ব্র্যান্ডের সঙ্গে চুক্তি করে নয়। ক্যারিয়ারে ৫০টির মতো পণ্যের প্রসার দূত হয়েছিলেন টেন্ডুলকার, যার বাজারমূল্য প্রায় ৫০০ কোটি রুপি। ১৯৯৬ সালে ওয়ার্ল্ডটলের সঙ্গে ৩০ কোটি রুপির চুক্তি করেছিলেন টেন্ডুলকার। সেই সময়ে অঙ্কটা ছিল আকাশ ছোঁয়া। ২০০১ সালে একই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি সবায়ন করেছিলেন ৬০ কোটি রুপিতে। পিউমার আগে অ্যাডিডাসের সঙ্গে তিন বছরের চুক্তি ছিল কোহলির। তিন বছরের এই চুক্তিতে পেয়েছিলেন ৩০ কোটি রুপি। সেই চুক্তির মেয়াদ শেষ হয়েছে গত বছরের ডিসেম্বরে। এরপরই এগিয়ে আসা পিউমা। কোহলিকে পিউমার পণ্যদূত হিসেবে  পেয়ে গতকাল উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন উসাইন বোল্টের মত কিংবদন্তিও।   টাইমস অব ইন্ডিয়া


মন্তব্য