kalerkantho

রবিবার। ৪ ডিসেম্বর ২০১৬। ২০ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


মুখোমুখি প্রতিদিন

জানিয়ে রাখলাম যে আমিও পারি

সবশেষ প্রিমিয়ার ক্রিকেট লিগের তৃতীয় সর্বোচ্চ রান তাঁর ব্যাটে। ভিক্টোরিয়ার হয়ে ১৬ ম্যাচে ৪৪.১২ গড়ে ৭০৬ রান করা আব্দুল মজিদ এর পর থেকেই ছিলেন এরকম একটি সুযোগের অপেক্ষায়। কালের কণ্ঠ স্পোর্টসের মুখোমুখি হয়ে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে দুই দিনের প্রস্তুতি ম্যাচে সেঞ্চুরি করে সুযোগ কাজে লাগানোর সন্তুষ্টির কথাও বললেন

১৭ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



জানিয়ে রাখলাম যে আমিও পারি

কালের কণ্ঠ স্পোর্টস : প্রিমিয়ার লিগের পর থেকে নিশ্চয়ই এরকম একটি ম্যাচ খেলার সুযোগের আশাতেই ছিলেন?

 

আব্দুল মজিদ : তা তো অবশ্যই। এরকম একটি সুযোগের আশা সবাই করে।

সৌভাগ্য যে আমি সুযোগটি পেয়েছি। এবং যথাসাধ্য সেটি কাজে লাগানোর চেষ্টাও করেছি।

প্রশ্ন : সেই চেষ্টায় কতখানি সফল হয়েছেন বলে মনে করেন?

মজিদ : (হাসি...) আসলে বিসিবি একাদশের হয়ে প্রস্তুতি ম্যাচে ভালো খেললে সবার নজরে পড়া যায়। মনে তো হয় যে আমি নজরে পড়তে পেরেছি।

প্রশ্ন : ইংল্যান্ড টেস্টের অন্যতম পরাশক্তি। তাদের বিপক্ষে করা সেঞ্চুরিটি আপনার নিজের কাছে কোন জায়গায় থাকছে?

মজিদ : এক কথায় যাকে বলে আমি ভীষণ রোমাঞ্চিত। ইংল্যান্ড তো আর যে-সে দল নয়। ওদের বিপক্ষে সেঞ্চুরি করতে পেরে অন্য রকম অনুভূতিই হচ্ছে আমার।

প্রশ্ন : প্রিমিয়ার লিগে অনেকের ব্যাটেই প্রচুর রানের দেখা মেলে। কিন্তু এরকম সুযোগ সবার হয় না। সেঞ্চুরি করে কি নিজেকে দৌড়ে একটু এগিয়েই রাখলেন না?

মজিদ : তা তো অবশ্যই। প্রথম কথা হলো ভালো দলের বিপক্ষে ভালো কিছু করলে নিজেরই লাভ সবচেয়ে বেশি। তাতে আত্মবিশ্বাসটা বেড়ে থাকে।  

প্রশ্ন : এই সেঞ্চুরির মাধ্যমে জাতীয় দল নির্বাচন সংশ্লিষ্টদের কী বার্তা দিয়ে রাখতে চাইলেন?

মজিদ : দেখুন, আমার কাজই হলো ভালো খেলা। ভালো খেলে একদিন জাতীয় দলেও সুযোগ পেতে চাই। তবে নির্বাচকরা আমাকে যোগ্য মনে করলেই কেবল আমি সুযোগ পাব। তার আগ পর্যন্ত নিজের কাজটা করে যেতে হবে। তবে হ্যাঁ, এই সেঞ্চুরির মাধ্যমে জানিয়ে রাখলাম যে আমিও পারি। পারি ইংল্যান্ডের মতো বড় দলের বিপক্ষেও।

প্রশ্ন : ৯৫ বলে সেঞ্চুরি করাতেই পরিষ্কার যে আপনি ইংল্যান্ডের বোলারদের ওপর চড়াও হয়েই খেলেছেন। তা কেমন লাগল ইংলিশ আক্রমণ?

মজিদ : ওরা নির্দিষ্ট একটি জায়গায় বলে করে যায়। আমিও বল দেখে দেখে খেলার চেষ্টা করেছি। বাজে বল ‘পানিশ’ করেছি আর ভালো বলগুলো রেখেছি!

প্রশ্ন : প্রথম টেস্টের আগে ইংলিশ বোলারদের নিয়ে জাতীয় দলের ব্যাটসম্যানদের কী বলার আছে?

মজিদ : বলার বিশেষ কিছুই নেই। কারণ আমাদের দলেও এখন অনেক বড় বড় ব্যাটসম্যান। কাজেই তাঁরা ভালো জানেন যে কিভাবে ইংলিশ বোলারদের সামলাতে হবে। ওরা নির্দিষ্ট একটা লাইনে বল করে ঠিক আছে, কিন্তু ওদের এলোমেলো করে দেওয়ার ব্যাটসম্যানও আমাদের আছে।

 


মন্তব্য