kalerkantho

শুক্রবার । ৯ ডিসেম্বর ২০১৬। ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


মরগানের সমালোচনায় ফারব্রেস

৫ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০



মরগানের সমালোচনায় ফারব্রেস

বাংলাদেশ সফরে না আসায় এউইন মরগানের দিকে সমালোচনার তীর ছোড়া হয়েছিল গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমগুলোতে। এত দিন পর্যন্ত দলের ভেতর থেকে কিংবা ইংল্যান্ড অ্যান্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ডের (ইসিবি) কর্তাব্যক্তিদের কাছ থেকেও সরাসরি কোনো নেতিবাচক বক্তব্য পাওয়া যায়নি এই দুই ক্রিকেটার সম্পর্কে।

বাংলাদেশে এসে উন্নত নিরাপত্তাব্যবস্থা ও উষ্ণ আতিথেয়তা দেখে ভুল ভেঙেছে সফরকারী দলের অনেকেরই। কেউ কেউ প্রকাশ্যে মুখও খুলেছেন, তাঁদেরই একজন ইংল্যান্ড দলের সহকারী কোচ পল ফারব্রেস। মরগান ও হেলসকে যে বাংলাদেশ সফরের পর ভারত সফরের দলে জায়গা পেতে অনেক কাঠখড় পোড়াতে হবে, সেই আভাসও মিলেছে ফারব্রেসের কথায়।

বাংলাদেশ সফরে ইংল্যান্ড ক্রিকেট দলের সঙ্গে আসা সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপে উষ্মা লুকাননি ফারব্রেস, খোলাখুলিই জানিয়েছেন, ‘আমি মিথ্যা বলছি না, তারা (মরগান ও হেলস) বাংলাদেশ সফরে না আসায় আমি খুবই হতাশ হয়েছি। এখন পরিস্থিতিটা এমন হয়েছে যে যারাই তাদের জায়গায় আসবে, তারা যদি ভালো করে তাহলে ওই দুজন সহজে তাদের জায়গাটা ফিরে পাচ্ছে না। ভারতের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডের জন্য দল ঠিক করার পালা যখন আসবে, তখন নির্বাচকদের কঠিন সিদ্ধান্তই নিতে হবে। ’ বাংলাদেশ সফরে কড়া নিরাপত্তা বলয়ের ভেতর রাখা হয়েছে ইংল্যান্ড দলকে। সরকারের বিশেষ বাহিনীর সদস্যরাসহ সশস্ত্র পুলিশ সদস্যরা গড়ে তুলেছেন ইস্পাত কঠিন নিরাপত্তা বেষ্টনী। খেলার মাঠ ও হেটেলের আশপাশের ছাদে আছে স্নাইপারের নজরদারি। যেসব নিরাপত্তাব্যবস্থার কথা ইসিবির নিরাপত্তা পর্যবেক্ষক রেগ ডিকাসন উল্লেখ করেছিলেন তাঁর প্রতিবেদনে, সবই চলছে সেই অনুযায়ী। এমন নিরাপত্তাব্যবস্থার পরও দলের নিয়মিত অধিনায়ক ও সেরা উদ্বোধনী ব্যাটসম্যানের না আসাটা তো কোচকে হতাশ করারই কথা! টেলিগ্রাফ


মন্তব্য