kalerkantho

মঙ্গলবার । ৬ ডিসেম্বর ২০১৬। ২২ অগ্রহায়ণ ১৪২৩। ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৮।


ফাইনালে জোকোভিচ-ওয়ারিঙ্কা

১১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০



ফাইনালে জোকোভিচ-ওয়ারিঙ্কা

১৫ মিনিটেই ৫-০ গেমে এগিয়ে নোভাক জোকোভিচ। বোঝা যাচ্ছিল না সেমিফাইনাল নাকি প্রথম রাউন্ডের কোনো ম্যাচ হচ্ছে কি না? পয়সা খরচ করে গ্যালারিতে আসা দর্শকরা দুয়ো দিতে লাগল জায়েল মনফিলসকে! একটা সময় ঘুরে দাঁড়ানো সেই মনফিলসের পাওয়ার টেনিসে অসহায় জোকোভিচ রাগে শার্ট ছিঁড়ে ফেলেছিলেন তৃতীয় সেটে।

এমন নাটকে ভরা ম্যাচটা শেষ পর্যন্ত ৬-৩, ৬-২, ৩-৬ ও ৬-২ গেমে জিতে ইউএস ওপেনের ফাইনালে ‘জোকার’। আজকের ফাইনালে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী স্তান ওয়ারিঙ্কা। অন্য সেমিফাইনালে এই সুইস ৪-৬, ৭-৫, ৬-৪ ও ৬-২ গেমে হারিয়েছেন জাপানি কাই নিশিকোরিকে।

মুখোমুখি ২৩ ম্যাচে ওয়ারিঙ্কাকে ১৯ বার হারিয়েছেন জোকোভিচ। ১৩তম গ্র্যান্ড স্লাম জয়ের স্বপ্নটা দেখতেই পারেন তাই। তবে দুটি গ্র্যান্ড স্লাম জেতা ওয়ারিঙ্কা গত বছরের ফ্রেঞ্চ ওপেন ফাইনালে হারিয়েছিলেন জোকারকে। সেটাই প্রেরণা রজার ফেদেরারের দেশের এ তারকার, ‘আবারও জোকোভিচের মুখোমুখি হতে পারাটা রোমাঞ্চের। প্রথমবার ইউএস ওপেনের ফাইনালে পৌঁছেও রোমাঞ্চিত আমি। কতবার যে রাফা, রজার, জোকারের ফাইনাল দেখতে হয়েছে টেলিভিশনে। ’ আজ জিতলে ইতিহাস গড়ার হাতছানি জোকোভিচের সামনে। সমান ১২ গ্র্যান্ড স্লাম জিতে তিনি রয় এমারসনের সমতায়। ফ্ল্যাশিং মিডোয় শেষ হাসি হাসলে ছাড়িয়ে যাবেন তাঁকে। সামনে তখন থাকবেন কেবল রাফায়েল নাদাল (১৪), পিট সাম্প্রাস (১৪) ও রজার ফেদেরার (১৭)। এএফপি


মন্তব্য