kalerkantho


ফিঞ্চের জায়গা নেই একাদশে!

১৬ মার্চ, ২০১৬ ০০:০০



জানুয়ারিতেও অস্ট্রেলিয়ার টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক ছিলেন, টি-টোয়েন্টি র্যাংকিংয়ের শীর্ষেও আছেন অ্যারন ফিঞ্চ। তবু তিনি নিশ্চিত নন যে শুক্রবার ওয়ার্ল্ড টি-টোয়েন্টিতে অস্ট্রেলিয়ার প্রথম ম্যাচের একাদশে জায়গা পাবেনই।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচটি খেলার জন্য গতকাল ধর্মশালার উদ্দেশে রওনা হওয়ার আগে এমন অনিশ্চয়তার কথাই জানিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার এ ওপেনার।

‘সত্যি বলতে কি একাদশে জায়গা পাওয়া নিয়ে আমার কোনো ধারণাই নেই। উইকেট দেখার পর নির্বাচকরা সিদ্ধান্ত নেওয়ার পরই জানতে পারব আমি খেলছি কি খেলছি না’, বলেছেন অ্যারন ফিঞ্চ। প্রথম ওপেনারের জায়গাটা ভারতের বিপক্ষে সব শেষ হোম সিরিজে ঝোড়ো সেঞ্চুরি করা শেন ওয়াটসনের জন্য যে বরাদ্দ হয়ে গেছে সে ব্যাপারে নিশ্চিত তিনি। এ অলরাউন্ডারের উদ্বোধনী সঙ্গী হিসেবে নিজের সঙ্গে উসমান খাজার লড়াই দেখতে পাচ্ছেন তিনি।

ফর্মের তুঙ্গে থাকা উসমান বাঁহাতি হওয়ায় ওয়াটসনের সঙ্গী হওয়ার রেসে এগিয়েও আছেন খানিকটা। যদিও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ডারবানে ১৮ বলে ৪০ রানের ইনিংস খেলা ফিঞ্চের সময়টা খারাপ কাটেনি পাকিস্তান সুপার লিগেও। আপাতত সেসবই নিজের পক্ষে সওয়াল জবাবে তুলে ধরছেন তিনি, ‘আমি ভালো টাচে আছি। ব্যাটে-বলে ভালো হচ্ছে।

তাই সুযোগ পেলে ঝড় তুলব। ’

ফিঞ্চ একা নন, প্রথম ম্যাচের একাদশে জায়গা নিয়ে অনিশ্চয়তায় ভুগছেন পেসার জস হ্যাজেলউডও, তা যতই প্রস্তুতি ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হ্যাটট্রিক থাকুক না কেন তাঁর! অস্ট্রেলিয়া স্কোয়াডে চার পেসার আছেন—হ্যাজেলউড, জন হেস্টিংস, নাথান কুল্টার-নাইল ও অ্যান্ড্রু টাই। সঙ্গে পেসার অলরাউন্ডারেরও অভাব নেই—জেমস ফকনার, মিচেল মার্শ ও ওয়াটসন। সে ক্ষেত্রে বিশেষজ্ঞ পেসারদের দলটা ভারী না করলেও চলছে অস্ট্রেলিয়ার। হ্যাজলউডের দুশ্চিন্তা এ কারণেই, ‘উইকেট যদি সে রকম হয় তাহলে একজন বিশেষজ্ঞ পেসারের সঙ্গে অলরাউন্ডারের সংখ্যা বাড়িয়েও একাদশ গড়তে পারেন নির্বাচকরা। ’ তাহলে অ্যাস্টন অ্যাগার কিংবা অ্যাডাম জাম্পাকে দিয়ে স্পিন বিকল্পটাও হাতে থাকবে অস্ট্রেলিয়ার। সিডনি মর্নিং হেরাল্ড


মন্তব্য