kalerkantho


বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় শুভসংঘের নতুন কমিটি

শুভ কাজেই শুরু হোক পথচলা

আবুল বাশার মিরাজ   

২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০



শুভ কাজেই শুরু হোক পথচলা

বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় শাখা শুভসংঘের নতুন কমিটির বন্ধুরা ছবি : ইনতিসার আউয়াল প্রিয়

‘ছোটবেলা থেকেই ইচ্ছা ছিল সমাজের জন্য, অসহায়-নিপীড়িত মানুষের জন্য কিছু করা। এ ক্যাম্পাসে শুভসংঘ এমন একটি সংগঠন, যার মাধ্যমে আমার ইচ্ছাগুলো বাস্তবায়ন করতে পারব। শুভসংঘের মূলমন্ত্রকে বুকে ধারণ করে শুভ কাজে সবার পাশে থাকতে পারব ভেবে নিজেকে সৌভাগ্যবান মনে হচ্ছে। ’ সম্প্রতি বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে (বাকৃবি) যাত্রা শুরু করা কালের কণ্ঠ শুভসংঘের সঙ্গে যুক্ত হয়ে এভাবেই নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করেন নতুন বন্ধু দুরন্ত, অলিক, নেহাল, আয়েশা, মোর্শেদুল ইসলামসহ অনেকেই।

শুভসংঘের কাজকে গতিশীল করার লক্ষ্যে গত ৫ ফেব্রুয়ারি রবিবার বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে কালের কণ্ঠ শুভসংঘের ৩৫ সদস্যের কার্যকরী কমিটির অনুমোদন দেওয়া হয়। এতে সভাপতি পদে মো. আব্দুল আলীম এবং সাধারণ সম্পাদক পদে মো. মনির হোসেন নির্বাচিত হয়েছেন। এ ছাড়া সহসভাপতি পদে নুসরাত জাহান নিভা ও মো. আব্দুর রউফ, যুগ্ম সম্পাদক পদে রূপক চন্দ দাস, সাংগঠনিক সম্পাদক পদে মো. ইফতেখার মাহমুদ সঞ্চয় ও সুলতান সাজেবুল সোহান, সহসাংগঠনিক সম্পাদক পদে মো. ফারুক হোসেন ও শারমিন শাহীন স্মরণ, কোষাধ্যক্ষ পদে জাহিদুল হাসান, দপ্তর সম্পাদক পদে মো. সানোয়ার হোসেন, প্রচার সম্পাদক পদে মো. নিহাল হোসেন নাফিস, প্রকাশনা সম্পাদক পদে জাবেদা খানম জুঁই, সাহিত্যবিষয়ক সম্পাদক পদে মো. আব্দুল্লাহ-হেল-জাহেদী, সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক পদে মো. নূরে আলম সাকিব, তথ্য ও প্রযুক্তিবিষয়ক পদে মুহাম্মদ আরিফউজ্জামান কৌশিক, শিক্ষাবিষয়ক সম্পাদক পদে খালিদ সাইফুল্লাহ মুনির, ইভেন্ট সম্পাদক পদে মো. আসিফুর রহমান, ত্রাণ সম্পাদক পদে আরিফুল মোল্লা, ক্রীড়া সম্পাদক পদে জাকির হোসেন নির্বাচিত হয়েছেন। এ ছাড়া নির্বাহী সদস্য পদে আছেন মারজিয়া মারজু, গোবিন্দ চন্দ্র দাস, আসিফ আহমেদ, নাঈমা আক্তার, সাদিয়া নুসরাত নওশিন, অলক পণ্ডিত, আয়শা বিনতে হাফিজ, অনুপম রায়, দেবশ্রী হালদার তুলি, হাবিবা আক্তার, শাহাদুজ্জামান রায়হান, সাদিকা তাসনিম, আব্দুল্লাহ আল মুহিত, ইসরাত জাহান নিঝুম ও সাজ্জাদ হোসেন। যাত্রার শুরুতেই ক্যাম্পাসে শুভসংঘের বন্ধুর সংখ্যা দাঁড়ায় প্রায় ১০০ জনে।

নবগঠিত বাকৃবি শাখার সভাপতি আব্দুল আলীম বলেন, ‘শুভ কাজের প্রতিযোগিতায় যেমন মানসিক আনন্দ রয়েছে, তেমনি রয়েছে সামাজিক দায়বদ্ধতা। সমাজের বন্ধু তারাই, যারা অসহায় ও দুঃখী মানুষের পাশে নিঃস্বার্থভাবে দাঁড়ায়।

একটু দেরিতে হলেও ক্যাম্পাসে শুভসংঘ চালু করতে পেরে ভালো লাগছে। ’ শুভ কাজের মাধ্যমে সংগঠনটিকে ক্যাম্পাসে সবার প্রথমে রাখবেন বলেও আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহীম ফকির মনির বলেন, ‘শুভসংঘের মূলমন্ত্র সবার মাঝে ছড়িয়ে দেওয়ার লক্ষ্যে সব সময় কাজ করে যাব। ’ শুভ কাজে সবার পাশে—এই মূলমন্ত্রকে বুকে ধারণ করে সবাই হাতে হাত, কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে শুভ কাজে সবার পাশে থাকার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তিনি। রূপক চন্দ দাস বলেন, ‘এমন সুন্দরতম একটি প্ল্যাটফর্মে নিজের বিশ্ববিদ্যালয়ের নাম বুকে নিয়ে কিছু ভালো কাজের অংশীদার হতে পারব, এটা সত্যিই অব্যক্ত অনুভূতি। নিজ আলোয় আলোকিত হোক বাকৃবি শুভসংঘ। ’

বাকৃবিতে শুভসংঘ যাত্রা শুরু করায় সাধুবাদ জানিয়েছেন বিভিন্ন ছাত্র ও সামাজিক সংগঠনের নেতারা। সাধুবাদ জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ও কর্মকর্তারা। বাকৃবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আলী আকবর সাধুবাদ জানিয়ে বলেন, ‘শুভসংঘ হোক শুভ কাজের একমাত্র মাধ্যম, শুভসংঘ এগিয়ে যাক বহুদূর। সুন্দর এই পথচলা যাতে শেষ না হয়, এই শুভ কামনা রইল শুভসংঘের জন্য। ’

উল্লেখ্য, ক্যাম্পাসের যেকোনো লেভেলের শিক্ষার্থীরাই শুভসংঘের সদস্য হতে পারবেন। বন্ধু হতে যোগাযোগ করুন ০১৭৬২২০৪৩৫২ নম্বরে অথবা ফেসবুক পেজে facebook.com/BAU.Shuvoshangha


মন্তব্য