kalerkantho


দৃষ্টিহীন সোহাগ

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি   

৩ জানুয়ারি, ২০১৮ ০০:০০



দৃষ্টিহীন সোহাগ

হবিগঞ্জ সদর উপজেলার লস্করপুর গ্রামের দৃষ্টিহীন আমিনুল ইসলাম সোহাগ উচ্চশিক্ষা অর্জন করতে চায়। এ বছর জেএসসি পরীক্ষায় জিপিএ ৩.১৪ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে সে। হবিগঞ্জ সদর উপজেলার লস্করপুর গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে সোহাগ শৈশবে জ্বরে আক্রান্ত হয়ে দৃষ্টিশক্তি হারায়। কিন্তু বইপ্রেমী সোহাগ অন্ধত্বের কাছে হার মানেনি। অসাধারণ স্মরণশক্তি এবং প্রখর বুদ্ধি দিয়ে পড়াশোনা চালিয়ে যাচ্ছে সে। সোহাগ স্থানীয় গঙ্গানগর উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্র। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল মোছাব্বির দুলাল বলেন, ‘সোহাগ লেখাপড়ায় খুবই আগ্রহী। সে দৃষ্টিহীন হওয়া সত্ত্বেও কষ্ট করে পড়াশোনা করছে।’

সোহাগ জানায়, লস্করপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে পিএসসি পরীক্ষায় শ্রুতি লেখকের মাধ্যমে অংশগ্রহণ করে জিপিএ ৩.১৭ পেয়েছিল। সোহাগের বাবা নুরুল ইসলাম ছেলের ফলাফলে অত্যন্ত আনন্দিত। তিনি ছেলের উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত হওয়ার ইচ্ছা পূরণ করবেন বলে জানিয়েছেন। হবিগঞ্জ সদর উপজেলার মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা জিয়া উদ্দিন জানান, সোহাগ সবার কাছে উদাহারণ সৃষ্টি করেছে। জেএসসি পরীক্ষায় সে মুখ দিয়ে বলেছে এবং সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্র তা খাতায় লিখেছে। এভাবে পাস করে সে প্রমাণ করেছে প্রতিবন্ধীরাও অসম্ভবকে সম্ভব করতে পারে।



মন্তব্য