kalerkantho


উন্নয়নকাজ টেকসই করতে সৃজনশীল প্রকল্প নিয়ে কাজ করার তাগিদ

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০



বিশ্ববিদ্যালয় কেবল সনদপত্র প্রদানের জায়গা নয় বলে মন্তব্য করেছেন চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (চুয়েট) উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ রফিকুল আলম। তিনি বলেন, ‘এটি নিত্যনতুন জ্ঞান সৃষ্টির একটি সুবিস্তৃত পরিসর। বর্তমান সরকার গবেষণা ও প্রায়োগিক শিক্ষার প্রতি গুরুত্ব দিচ্ছে। শিক্ষা ও গবেষণা খাতে রেকর্ডসংখ্যক বরাদ্দ বাড়িয়েছে। উন্নয়ন কর্মকাণ্ডকে টেকসই করতে সৃজনশীল প্রজেক্ট নিয়ে কাজ করতে হবে।’

রবিবার পুরকৌশল বিভাগের সেমিনার কক্ষে আয়োজিত ‘জিওগ্রাফিক্যাল ইনফরমেশন সিস্টেম অ্যান্ড ইটস অ্যাপ্লিকেশন’ শীর্ষক প্রশিক্ষণ শর্ট-কোর্সের সনদপত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন উপাচার্য। সেন্টার ফর রিভার, হারবার অ্যান্ড ল্যান্ড-স্লাইড রিসার্চ-এর তৃতীয় ব্যাচের অংশগ্রহণকারীদের ওই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অধ্যাপক ড. মো. রিয়াজ আকতার মল্লিকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন স্থাপত্য ও পরিকল্পনা অনুষদের ডিন এবং গবেষণা ও সম্প্রসারণ দপ্তরের পরিচালক অধ্যাপক ড. মো. সাইফুল ইসলাম, বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার (অতিরিক্ত দায়িত্ব) অধ্যাপক ড. ফারুক-উজ-জামান চৌধুরী। সেন্টারের প্রভাষক আহাদ হাসান তানিমের সঞ্চালনায় শর্টকোর্সে অংশগ্রহণকারীর মধ্যে অনুভূতি ব্যক্ত করেন রাহুল বণিক।

উল্লেখ্য, মোট ৭৫ জন আবেদনকারীর বিপরীতে ৪০ শিক্ষার্থীকে এই প্রশিক্ষণ শর্টকোর্সে অংশগ্রহণের সুযোগ দেওয়া হয়।



মন্তব্য